আফগানিস্থান ভ্রমণ

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে চলুন অনুসন্ধানে চলুন
আফগানিস্থান ভ্রমণ

আফগানিস্থান ভ্রমণ

শ্রী রামনাথ বিশ্বাস

অশোক পুস্তকালয়

পুস্তক-বিক্রেতা ও প্রকাশক

৬৪, হ্যারিসন রোড, কলিকাতা-৯

তৃতীয় সংস্করণ

মূল্য দুই টাকা আট আনা মাত্র


৬৪, হ্যারিসন রোড, কলিকাতা-৯, অশোক পুস্তকালয়ের পক্ষ হইতে
শ্রীভারতী দেবী কর্তৃক-প্রকাশিত ১২১, রাজা দীনেন্দ্র স্ট্রীট, কলিকাতা-৪
শ্রীগোপাল প্রেস হইতে শ্রীইন্দ্রজিত পোদ্দার কর্তৃক মুদ্রিত।
শ্রীযুক্তা হরপ্রিয়া দেবী কর্তৃক সুৰ্বস্বত্ব সংরক্ষিত।

দ্বিতীয় সংস্করণের ভূমিকা

 আফগানিস্থান ভ্রমণ করার সময় যাহা দেখেছি এবং শুনেছি তাই লিখেছি। ১৯১৯ সালের মে মাসে আফগানিস্থান স্বাধীন হয় এবং ইহা একটি বাফার স্টেটে পরিণত হয়। যদিও আফগানিস্থান স্বাধীনতালাভ করেছিল কিন্তু নানা কারণে সাধারণ লােকের কোন উন্নতি হয় নি। রক্ষণশীলতা ও সনাতন আচার-পদ্ধতির বেড়াজাল ছাড়িয়ে যেতে যে পরিমাণ শিক্ষা এবং আন্দোলনের আবশ্যক, আফগানিস্থানে তার অভাব দেখেছি। রাজা আমানউল্লা নূতন জগতের নূতন ধারায় দেশটাকে গড়ে তুলতে চেয়েছিলেন কিন্তু সে অবসর তিনি পান নি। যে পরিবর্তন ও উন্নতি আফগানিস্থানে এখনও আসে নি এক দিন সেই পরিবর্তন নিশ্চয় আসবে, আফগানিস্থানের জনগণ চারিদিকের দৃষ্টান্ত দেখে উদ্বুদ্ধ হবে।

 আফগানিস্থানের বাসিন্দা সম্বন্ধে আমাদের মনে অনেক উদ্ভট ধারণা রয়েছে। আমাদের ধারণা আফগানিস্থান যেমন কর্কশ এবং পর্বতসংকুল তেমনি আফগানরাও বুঝি দয়ামায়াহীন, অর্থলােভী এবং হিংস্র। বস্তুত তা’ নয়। আফগানিস্থান সম্বন্ধে এই প্রকার বিকৃত ধারণা পােষণ করার কোনও হেতু আমি পাই নি।

 আমার ভ্রমণ কাহিনী পড়ে আফগানিস্থানের যথার্থ স্বরূপ বুঝবার যদি সহায়তা হয় তবেই আমি কৃতার্থ মনে করব এবং আমার আফগানিস্থান ভ্রমণ, সফল হবে।

অগ্রহায়ণ ১৩৪৯ বঙ্গাব্দ
১৫৬, আপার সারকুলার রোড,
কলিকাতা-৬

গ্রন্থকার

তৃতীয় সংস্করণের ভূমিকা

 তৃতীয় সংস্করণের ভূমিকাই আফগানিস্থান ভ্রমণের শেষ ভূমিকা—ভবিষ্যতে এই পুস্তকের পরিবর্তন বা পরিবর্ধন আর কিছুই হবে না।

 আফগানিস্থানের ভবিষ্যৎ দিব্য চক্ষে দেখতে পাচ্ছি। এই দেশের তিন দিকে যে সকল দেশ আছে এক রুশিয়া ছাড়া প্রত্যেকটি দেশের রাষ্ট্রনৈতিক পরিবর্তন অবশ্যম্ভাবী। সেই পরিবর্তনের সময় আফগানিস্থানও আপনা হতেই রূপ বদলাতে বাধ্য হবে। আফগানিস্থানের লোকসংখ্যা খুবই কম এবং দেশটা পর্বতমালায় সমাকীর্ণ। নূতন পরিবর্তনের সময় এ দেশের লোকক্ষয় কমই হবে—সেজন্য আফগান জাত কারো কাছে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ না করলেও চলবে। যদি তাদের কারো কাছে কৃতজ্ঞতা প্রদর্শন করতে হয় তবে তারা কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করবে তাদের দেশের পর্বতমালার কাছে। পর্বতমালা হবে তাদের আশ্রয়।

গ্রন্থকার

এই লেখাটি বর্তমানে পাবলিক ডোমেইনের আওতাভুক্ত কারণ এটির উৎসস্থল ভারত এবং ভারতীয় কপিরাইট আইন, ১৯৫৭ অনুসারে এর কপিরাইট মেয়াদ উত্তীর্ণ হয়েছে। লেখকের মৃত্যুর ৬০ বছর পর (স্বনামে ও জীবদ্দশায় প্রকাশিত) বা প্রথম প্রকাশের ৬০ বছর পর (বেনামে বা ছদ্মনামে এবং মরণোত্তর প্রকাশিত) পঞ্জিকাবর্ষের সূচনা থেকে তাঁর সকল রচনার কপিরাইটের মেয়াদ উত্তীর্ণ হয়ে যায়। অর্থাৎ ২০২১ সালে, ১ জানুয়ারি ১৯৬১ সালের পূর্বে প্রকাশিত (বা পূর্বে মৃত লেখকের) সকল রচনা পাবলিক ডোমেইনের আওতাভুক্ত হবে।