পাতা:অক্ষয়কুমার বড়াল গ্রন্থাবলী.djvu/১৮২

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


ওই যা। ওই যা – জানেলাটা গেল হাওয়ায় হাওয়ায় খুলে । কে কোথায়, হায় । আমারি ছপুর কাটিল খেয়ালে ভুলে । গোপাল গভীর যামিনী, আঁধার আকাশ, দুরেতে ঝটিকা শ্বাসে । 与 দিগন্তের কোলে চমকে দামিনী, —পথিক ছুটিছে ত্রাসে । এ ধারে গর্জিছে অশ্বখের শ্রেণী, ও ধারে তটিনী ভাঙিছে পাড়, হোথায় —শাশানে জ্বলিতেছে চিতা । — বড় শ্রাস্ত দেহ, চলে না আর । সপ্ত বর্ষ পরে ফিরিতেছে ঘরে, ব্যাকুল দেখিতে স্ত্রীপুত্ৰ-মুখ । অর্থের অভাবে ছেড়েছিল দেশ, পেয়েছে সে অর্থ, পাবে কি সুখ ? ‘খোল—খোল দ্বার, নিস্তব্ধ কুটার, পুন করাঘাতি ডাকিল হেঁকে। একটি নিশ্বাস শুধু শোনা গেল । চাল হ’তে পেচা উড়িল ডেকে । "খোল—খোল দ্বার, ভেঙে গেল দ্বার, —এ কি নিস্তব্ধত ভয়-সঞ্চারী। হাসিল বিদ্যুৎ পিশাচীর মত,— মৃত পুত্র বুকে, মুমুধু নারী ॥