পাতা:অক্ষয়-সুধা - অক্ষয়কুমার দত্ত.pdf/৩

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে চলুন অনুসন্ধানে চলুন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।

ভূমিকা

 প্রতিভাশালী সাহিত্যিকগণের বিভিন্ন বিষয়ক সর্ব্বোৎকৃষ্ট রচনার সংগ্রহ-গ্রন্থ বালকগণের ভাব-সঞ্চয়ের পক্ষে সহায়তা করিলেও, ভাব প্রকাশের কোন একটি বিশিষ্ট ধারা, স্বতন্ত্রভাবে নির্দ্দেশ করে না। যে সকল বালক, বঙ্গ-সাহিত্য আলোচনায় কথঞ্চিৎ অগ্রসর হইয়া, বিভিন্ন ভাবরাজি কতকটা আয়ত্ত করিয়াছে, তাহাদিগকে তাহাদের মনোগত ভাব প্রকাশের জন্য, কোন একটি বিশিষ্ট ধারা বা রচনাপদ্ধতির আশ্রয় গ্রহণ করিতে হয়। কিন্তু কোন প্রতিভাশালী লেখকের রচনার ধারা, তাঁহার দুই একটি প্রবন্ধ বা দুই একখানি মাত্র গ্রন্থ পাঠ করিলে, সম্যকরূপ হৃদয়ঙ্গম হয় না। বিভিন্ন ভাব অবলম্বনে রচিত বিভিন্ন বিষয়ক রচনা পাঠ করিলে — এক কথায়, কোন এক নিৰ্দিষ্ট লেখকের সর্ব্ববিষয়ে মনোগত ভাব প্রকাশের ধারা আলোচনা করিলে, তাঁহার রচনাভঙ্গির আদর্শ বালকগণের প্রকৃষ্টরূপ আয়ত্ত হইতে পারে — অন্যথায় নহে।

 বালকগণ, তাহাদের রচনাবিষয়ে কিরূপ ধারা অবলম্বন করিবে, তাহার আদর্শ স্বরূপ বিশ্ববিদ্যালয় যে কয়জন খ্যাতনামা লেখকের নাম নির্দ্দেশ করিয়া থাকেন, অনন্য সাধারণ প্রতিভাশালী লেখক স্বর্গীয় অক্ষয় কুমার দত্ত মহাশয় তাঁহাদের মধ্যে অন্যতম প্রধান। অক্ষয় কুমার দত্ত মহাশয়ের রচনা সঞ্চয় করিয়া ‘অক্ষয়-সুধা'-গ্রন্থ সঙ্কলিত হইল। এই গ্রন্থে, অক্ষয় কুমার দত্ত মহাশয়ের সর্ব্ববিধ রচনা হইতে আদর্শ সংগৃহীত হইয়াছে। আশা করি, বিদ‍্যার্থিগণ এই গ্রন্থ পাঠে দত্ত-মহাশয়ের অবলম্বিত বিশুদ্ধ রচনা-পদ্ধতি, সহজেই হৃদয়ঙ্গম করিতে পারিবে।

 প্রতিভাশালী সাহিত্য-শিল্পিগণের সাধনা দ্বারা, সাহিত্যের রচনা রীতি ক্রমশঃ উৎকর্ষ লাভ করিতেছে এবং ভাষার সামর্থ‍্য, লালিত্য, স্বচ্ছতা ও