পাতা:অবলা প্রবলা.djvu/১৮৫

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


১৭২ ৷ অধলা প্রবল । করি সর্থীগণে কহে ধনী ততক্ষণে, কি কহিলে প্রাণের সম্বল। বিনামূলে ও যুগল পায়, কিৰ্ণিয়। রাথিলে প্রাণ কায় । আমি তব কেণা দাসী, এই ভালবাসা বাসি, চিরদিন রেথ রসরায় ৷ তুমি হুে প্রেমিক গুণবান, দেখে দেহু তরী কৈলু দান কথায় কহিলে যত, শেষ যেন থাকে তত, হত নাহি কর এত মান ৷ রায় বলে কেন পুনৰ্বার, বিপরীত ভাৰ ইথে আর । থাকিতে দেহে জীবন, অন্যমত কদাচন, নাহইবে কথার আমার । তুমি মাত্র মনে রেথ দাসে অনুগত আছি তৰ পাশে । অবলার কত ভাব না ভাবি ও ভিন্নভাব শেষে যেন শত্ৰ, নাহি হাসে । এইৰূপ কথায় ২ র জনীর অন্ধ ভাগ মায় । নিদ্রায় অবশ কায়া, কোলেতে লইয়। জায়া, যুবরাজ শেষাদ্ধ পোছায় ; নিশানাথ অস্তাচলে চলে পিক গণে কুহুহ বলে। উঠিল নাগর রায়, নাগরী লুনি যায়, হেরিয়া অনঙ্গে অঙ্গ টলে । আরম্ভিল পুনঃকমি যাগ, বাড়িল সুথের অনুরাগ । পূৰ্বমত প্রণ পণে, গমাটি আলিঙ্গনে, সাঙ্গ কৈল রতি রঙ্গ রাগ । উঠিল রণিক চড়ামণি, সলজ্জিত। রমণী আমনি। অসিয়; ই হিরে ধীরে, গগণে দেথি uBBBS BBB BBB BBBBBS BSBB BBB BBB