পাতা:অমরনাথ (কৃষ্ণচন্দ্র রায় চৌধুরী).pdf/১৯৭

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


অমরনাথ । طبيا جم সুসার। না বলি ওরই কথাই বোলচেন, তা নৈলে আর তো আমি কিছু দেখিনে। ভাল তা হলই যেন । তাতে হয়েছে কি ? রক্ষে পেলেম । আমি বলি না জানি কি । তা আমি ওকে দেখব বোলেও আসিনি, আর ও ষে এখানে আছে তাও আমি জানিনি। হঠাৎ এসে পোড়লেম, চক্ষু দুট আছে, কাজেই দেখতে হলে । ও ষে দিকে দাড়িয়ে ছিল, আমি সে দিকে চাইনি, আমি ষে দিকে চাইলেম, ও সেই দিকে দাড়িয়ে ছিল । কাজেই দেখতে হলো । নীল । কপালে আছে ঘি, না খেয়ে করি কি ? বিরিশি সিক্কের ওজনে এক লাথি মেরে বিষ্ণবে নম ? ওকে কি বলে কাজেই দ্যাখt ? অার তো কিছুই বাকি ছিল না, ক্ষুদ্ধ লাফুট দিয়ে ঘাড়ে পড়া, এই টুকু হলেই বেরালের সিকের আর যতদুব তা হয়ে গিছল। সুসার। তা এ কথার অার অামি কি বোলব। এর তো আর লেখt · পড়াও নেই, সাক্ষী সাবুদও নেই। তবে আপনি যা বলেন তাইই ভাল । তা যাক, হাসি তামাস যাক, ওটি কে ? নীল । যে হোক, তাতে তোমার কি এল গেল ? তুমি তো পরমহংস ; তুমি কারো দিকে চাওও না, কারে খবরেও তোমার দরকার নেই। মুসার । না না, তামাসা না, সত্তি যথার্থ ওটি কে ? নীল । বড় ব্যস্ত যে ? না না, তামাস না, সত্তি যথার্থ, ওটি কে, তোমার যেন আর কোন কথা ভাল লাগচে না ! মুসার। আঃ! আপনি বড় কচালে মানুষ। যাক তবে আপনারও বোলে কাজ নেই, অামারও শুনে কাজ নেই। না শুনলে ভাত হজম হবে না এমন তো কিছু নয় ? ( মুখ ভারি ) নীল। তুমি যে যথার্থই চোটুলে দেখি। আমার এমনি বোধ হচ্চে যে আমি যদি না বলি, তবে তুমি এই খেন থেকে উঠে কাঁদতে কঁদিতে