পাতা:অরূপরতন - রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.pdf/১৫

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


অরপরতন ૨ উৎসব-ক্ষেত্র ( বিদেশী পথিকদল ও প্রহরীর প্রবেশ ) বিরাজদত্ত । ওগো মহাশয় । প্রহরী । কেন গো ? ভদ্রসেন । রাস্তা কোথায় ? এখানে রাজাও দেখিলো, রাস্তাও দেখিলে । আমরা বিদেশী, আমাদের রাস্তা ব’লে দাও । প্রহরী । কিসের রাস্ত ? মাধল । ঐ যে শুনেছি আজ অধরা-রাজার দেশে উৎসব হবে । কোন দিক দিয়ে যাওয় যাবে ? প্রহরী । এখানে সব রাস্তাই রাস্ত । যেদিক দিয়ে যাবে ঠিক পৌছবে । সামনে চলে যাও । বিরাজদত্ত । শোনে একবার কথা শোনো ! বলে, সবই এক রাস্তা । তাই যদি হবে তবে এতগুলোর দরকার ছিল কী ? মাধব । তা ভাই রাগ করিস কেন ? যে দেশের যেমন ব্যবস্থা ! আমাদের দেশে তে রাস্ত নেই বললেই হয়—বাকীচোরা গলি, সে তে গোলকধাঁধা । আমাদের রাজা বলে,খোলা রাস্ত না-থাকাই ভালো —রাস্ত পেলেই প্রজার বেরিয়ে চলে যাবে। এদেশে উণ্টো, যেতেও কেউ ঠেকায় না, আসতেও কেউ মানা করে না—তবু মানুষও তো ঢের দেখছি—এমন খোলা পেলে আমাদের রাজ্য উজাড় হয়ে যেত । } %