পাতা:অরূপরতন - রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.pdf/৬০

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


অরুপরতন গতিক কিছুই বুঝিনে, তার আর বলব কী ? যুদ্ধ তো শেষ হয়ে গেল,তিনি যে কোথায় তার কোনো সন্ধান নেই ! সুদৰ্শন । চলে গিয়েছেন ? ঠাকুরদাদা। সাড়া শব্দ তো কিছুই পাইলে । স্থদর্শন | চলে গিয়েছেন ? তোমার বন্ধু এমনি বন্ধু ! ঠাকুরদাদা । সেই জন্তে লোকে তাকে নিন্দেও করে সন্দেহও করে । কিন্তু " আমার রাজা তাতে খেয়ালও করে না । সুদৰ্শন | চলে গেলেন ? ওয়ে, ওরে, কী কঠিন, কী কঠিন ! একেবারে । পাথর, একেবারে বজ্ৰ ! সমস্ত বুক দিয়ে ঠেলেছি—বুক ফেটে গেল –কিন্তু নডল না ! ঠাকুরদাদ। এমন বন্ধুকে নিয়ে তোমার চলে কী ক’রে ? ঠাকুরদাদা । চিনে নিয়েছি যে—মুখে দুঃখে তাকে চিনে নিয়েছি— এখন আর সে কাদাতে পারে মা | সুদৰ্শন । আমাকেও কি সে চিনতে দেবে ন! ? ঠাকুরদাদা । দেবে বই কী ? নইলে এত দুঃখ দিচ্চে কেন ? ভালে ক’রে । চিনিয়ে তবে ছাড়বে, সে তো সহজ লোক নয় । স্থদর্শন । আচ্ছ। আচ্ছা, দেখব তার কত বড়ো নিষ্ঠুরতা। পথের ধারে আমি চুপ ক’রে পড়ে থাকুব-এক পা-ও নড়ব না—দেখি সে কেমন মা আসে । ঠাকুরদাদা। দিদি তোমার বয়স অল্প—জেদ ক’রে অনেকদিন পড়ে । থাকতে পারে!—কিন্তু আমার যে এক মুহূৰ্ত্ত গেলেও লোকসান হয় ! পাই নাপাই একবার খুঁজতে বেরব । [ প্রস্থান ©Ꮼ