পাতা:আকাশ-প্রদীপ-রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.djvu/৮০

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


আকাশ-প্রদীপ ইতিহাসের উপেক্ষিত এই সব ট্র্যাজেডি কোথাও দরদ পায় না, লজ্জার ভারে বালকের সমস্ত দিন রাত্রির দেয় মাথা হেঁট ক’রে । triar কোন বিচারক বিচার করবে যে মূল্য আছে সেই পুথিগুলোর। তবু এরি মধ্যে দেখা গেল শস্ত। খাজনা চলে এমন দাবিও আছে ঐ উচ্চাসনার, সেখানে ওর পিড়ে পাতা মাটির কাছে। , ও ভালবাসে কাচা আম খেতে শুল্লো শাক আর লঙ্কা দিয়ে মিশিয়ে । প্রসাদ লাভের একটি ছোট্ট দরজা খোলা আছে আমার মতো ছেলে আর ছেলেমানুষের জন্তেও । গাছে চড়তে ছিল কড়া নিষেধ । হাওয়া দিলেই ছুটে যেতুম বাগানে, দৈবে যদি পাওয়া যেত একটি মাত্র ফল একটুখানি দুর্লভতার আড়াল থেকে, দেখতুম সে কী শ্যামল, কী নিটোল, কী সুন্দর, প্রকৃতির সে কী আশ্চর্য দান। যে লোভী চিরে চিরে ওকে খায় সে দেখতে পায়নি ওর অপরূপ রূপ। একদিন শিলবৃষ্টির মধ্যে আম কুড়িয়ে এনেছিলুম,