পাতা:আত্মচরিত (শিবনাথ শাস্ত্রী).pdf/৪১৯

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


অষ্টাদশ পরিচ্ছেদ । আমি ক্ৰমে আসিয়া দেশে পৌছিলাম। পৌঁছিয়া আবার ধৰ্ম্মপ্রচারকাৰ্য্যে নিযুক্ত হইলাম। অপরাপর কাৰ্য্যের মধ্যে ইন্দোরের প্রথম প্রচারকাৰ্য্য স্মরণ আছে। আমার বন্ধু নবীনচন্দ্র রায় তখন কৰ্ম্ম তইতে অবস্থিত হইয়া খাণ্ডোয়াতে বাস করিতেছিলেন, সেখান হইতে তিনি রাষ্ট্রলামে এক কৰ্ম্ম পান। আমি খাণ্ডোয়া ও রাষ্ট্রলাম হইয়া ইন্দোরে গমন করি। সেখানে কতকগুলি উৎসাহী ব্ৰাহ্ম ছিলেন। ইন্দোরে আমি রাজ-অতিথিরূপে রাজার অতিথিশালাতে আশ্রয় পাই। আমার পরিচর্য্যার জন্য চাকর-বাকর এবং যাতায়াতের জন্য গাড়ি নিযুক্ত হয়। ক্ৰমে আমি কাৰ্য আরম্ভ করি। ইন্দোরে। যেখানে ব্রিটিশ গবৰ্ণমেণ্টের DBDKSLDBBD SS LLLLLLLlLSS LBDBDB BB BDD DD DBDB খ্যাত। এই রেসিডেন্সী বিভাগে অনেক ভদ্রলোকের বাস। আমার ব্ৰাহ্মবন্ধুগণ আমাকে রেসিডেন্সী বিভাগে একটী বক্তৃতা দিবার জন্য অনুরোধ করেন। তঁহাদের অনুরোধে আমি বক্তৃতা করিতে রাজি হুই। তাহারা রেসিডেন্সী বিভাগে একটা হল স্থির করিয়া আমার বক্তৃতার বিজ্ঞাপন বাহির করেন। ঐ মুদ্রিত বিজ্ঞাপনের এক খণ্ড রেসিডেন্ট সাহেবের হন্তে পতিত হয়। কে তখন রেসিডেন্ট ছিলেন, ভাল মনে নাই, বোধ হয়। সার লেপেল গ্রিফিন ; তিনি বিজ্ঞাপন পাইয়া জিজ্ঞাসা করিলেন, “এ শিবনাথ শাস্ত্রী কে ?” উত্তরে শুনিলেন যে একজন বাঙ্গালি ব্ৰাহ্মধৰ্ম্ম-প্রচারক। তখন বিরক্ত হইয়া বলিলেন, “বাঙ্গালিরা কেন এখানে আসে? এ বক্তৃতা এখানে হইতে পরিবে না।” অগত্যা তাড়া 8ፃ