পাতা:আনন্দমঠ - বঙ্কিমচন্দ্র চট্টোপাধ্যায়.djvu/২১

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


lժօ মাট্যশাল, কাছারি, দৈনিক জীবন ও চিন্তা, মন্দির ও গৃহ নিৰ্ম্মাণ প্রভৃতি বিষয়ে পণ্ডিতদের লেখা অনেক অনেক পুস্তক পড়িয়া এগুলির বিস্তৃত অতি নিখুৎ চিত্র আঁকিয়াছিলেন, যেন সেই যুগে সেই শহরের কতকগুলি কোটােগ্রাফ দিয়াছেন। লীটনের নভেলখানিতে বাহ পরিচ্ছদ ঠিক আছে, অবিকল সত্য; কিন্তু উহার মধ্যে প্রাণ কই ? উহার মধ্যকার মানবচরিত্রগুলি চিরস্মরণীয় হইয়া থাকে নাই কেন ? সমালোচক মেকলে ঠিক বলিয়াছেন যে, এডিসনের মত পণ্ডিত ক্লাসিকাল স্কলারের রচিত কেটে নাটকের মহাসম্রাস্ত রোমান্‌ সিনেটর অপেক্ষা স্কটের উপন্যাসে বর্ণিত বর্বর দরিদ্র ডাকাত মস্টরুপান্থ অনেক বড়, কারণ অধিকতর জীবস্তু, অধিকতর বাস্তব। এই পরীক্ষায় বঙ্কিমের-ঐতিহাসিকচরিত্রগুলি অপরাজিত, সাহিত্য সৰ্ব্বপ্রথম-পদ অধিকার করিয়াছে4 ‘আনন্দমঠে'র প্রথা লীটনের পন্থার বিপরীত। প্রথমেই তো গোড়ায় গলদ ; তাহার'সম্ভানেরা বাঙ্গালী ব্রাহ্মণ কায়স্থের ছেলে, গীতা যোগশাস্ত্র প্রভৃতিতে পণ্ডিত ; কিন্তু যে সব “সন্ন্যাসী ফকিরেরা সত্য ইতিহাসের লোক, এবং উত্তরবঙ্গে (বীরভূম নহে) ঐ সব অত্যাচার করে তাহার এলাহাবাদ কাশী ভোজপুর প্রভৃতি জেলার পশ্চিমে লোক এবং প্রায় সকলেই নিরক্ষর, ভগবদগীতার নাম পৰ্য্যস্ত জানিত না। বঙ্কিমের সস্তানসেন বৈষ্ণব, আর আসল “সন্ন্যাসী”রা ছিল শৈব, আজ পর্য্যস্ত তাঁহাদের নাগ-সম্প্রদায় চলিয়া আসিতেছে, যদিও ইংরেজের ভয়ে তাহারা এখন অন্ত্র রাখিতে বা লুঠ করিতে পারে না। এই সব সন্ন্যাসী গোসাই যোদ্ধাদের প্রকৃত ইতিহাস “রাজেন্দ্রগিরি গোসাই” (মৃত্যু দিল্লীর বাহিরে যুদ্ধে, ১৭৫৩ খ্ৰীষ্টাব্দে ) এবং তাঁহার চেলা “হিন্মৎ বাহাদুর" সম্বন্ধে রচিত ফারসী গ্রন্থ এবং হিন্দী “হিন্মৎ বাহান্থর বিরুদাবলী" প্রভৃতিতে পাওয়া যায়। বাঙ্গলার বিপ্লবকারী সন্ন্যাসীদের অতি মূল্যবান সত্য বিবরণ ব্ৰজেন্দ্রনাথ বন্দ্যোপাধ্যায় র্তাহার Daum of Neo India (1927)তে এবং রায় সাহেব যামিনীমোহন ঘোষ téfat: Sannyasi Fakir Raiders of Bengal diri (Bengal Secretariat Book Depot, 1980) দিয়াছেন। পাঠক উৎসুক হইলে এ ছুইখানি ইতিহাস পড়িবেন। সত্যকার সন্ন্যাসী ফকিরের অর্থাৎ পশ্চিমে গিরিপুরীর জল, একেবারে লুঠে ছিল, কেহ কেহ অযোধ্য স্ববায় জমিদারিও করিত ; মাতৃভূমির উদ্ধার, ছক্টের দমন ও শিষ্টের পালন উহাদের স্বপ্নেরও অতীত ছিল, এই মহাত্ৰত চট্টোপাধ্যায় মহাশয়ের কল্পনায় স্বই কুয়াশ মাত্র। সুতরাং ইতিহাসের দিক দিয়া দেখিতে গেলে আনন্দমঠ বর্ণিত নরনারী