পাতা:আমিষ ও নিরামিষ আহার প্রথম খণ্ড.djvu/১৭৭

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


দ্বিতীয় অধ্যায় । לר সাঞ্জির সিকি কাচ, সামরিচ সিকি কাচা, দারচিনি দুগির, ছোট এলাচ চরিট, লঙ্গ বারট, জায়ফল আধখানা, এইগুলি একত্রে গুড়াইয়া ফাকি করিতে হইবে অর্থাৎ একটী পাতল। কাপড়ে ছাকিয়া লইতে হইবে। এই গুলি কঁকি মশলা । ছোট এলাচ ছয়টা, লঙ্গ আটট,দারচিনি তিন গিরা, ডেলাক্ষীর একছটাক, জাফরান তিন রতি, তেজপাত চল্লিশখানা, ঘি দেড় পোয়, চিনি এক কঁচি, মুন এক কাচা, এইগুলি চালে মাখিতে হইবে । এই গুলিই চাল মাথ! মশলা । প্রণালী । --প্রথমে একটি পোলা ৪য়ের হাড়িতে অথিনির জন্য জল চড়াইয়া দাও । সামরিচ, সাজিরা, ছোলার ডাল, দারচিনি, লঙ্গ, ছোট এলাচ (এলাচ গুলির মুখ খুলিয়া দিবে), আদা (চাকা চাকা করিয়া কাটিয়া দিবে, তেজপাত, লস্ক (আধখানা করিয়া ভাঙ্গিয়া দিবে, এই সকল আঁখিনির মশলা সব একত্রে একটা নূতন টুকরা কাপড়ে পুটলি করিরা বাধিতে হইবে । তার পরে পুটলিট। জলের ভিতরে ডুবাইয়া দিয়া হাড়ি ঢাকিয়া দাও। ক্রমে জল ফুটিয়া দ্য সের জলের একসের কি পাচপোয় আন্দাজ জল বাকী থাকিলে হাড়ি নামাইতে হইবে। ইহা হইতে প্রায় ত্রিশ কি পয়ত্ৰিশ মিনিট লাগিবে। এই পুটলির ভিতরের সব মশলা সিদ্ধ হইয়া যাইবে, এবং জলের রং অনেকট চায়ের রংএর মত হুইবে । তারপরে জল একটু ঠাণ্ড হইলে ঐ পুটলিটা হাত দিয়া টিপিয়া টিপিয়া যতটা কাখ বাস্থির করিতে পার কর । শেষে একেবারে লিংড়াইয়া লইয়া পুটলিট ফেলিয়া দাও । ইহাই আঁখিনি বা আঁথনির জল । এইবার মশলা গুড়া করিতে হুইবে । সাজির, সামরিচ,এলাচ, দারচিনি, লঙ্গ, জারফল এই সকল ফাকি মশলার মশলাগুলি t;