পাতা:আমিষ ও নিরামিষ আহার প্রথম খণ্ড.djvu/৩২২

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


歌〉や আমিঘ ও নিরামিষ আহার। ছকিয় উঠাইবে। এত বেশী খিচড়াইলে, দেখিবে বেগুন কেমন ভাসিয় থেলিয় বেড়fই হছে । যত ঘিয়ের উপর খেলিতে পাইবে তত ভাঞ্জা ও ভাল হইবে । ১৭০।-তিলপিটুলি বেগুন ভাজা । উপকরণ।--কাচা মাষকলাই ডাল অধিপোয়, আতপ চাল সিকি তোলা, তিল এক ছটাক, হলুদ বঁটা সিকি তোলাটাক, মুম দুআনি ভর, বড় কচি বেগুন দুইটী, তেল এক পোয় । প্রণালী –পূৰ্ব্ব দিন রাত্রে আধ পোয় কাচা মাষকলাই ডাল ও আধ পোয় চাল আলাদা আলাদা পাত্রে ভিজাইতে দিবে। পর দিন সকালে, চাল ধুইয়া জল ঝরাইয়া রাখ ; ডালেয় পরিষ্কার করিয়া খোধা তুলিয়া অনেকবার জল বদলাইয়া ধুইয়া রাধ। চাল ও ভাল হাতে করিয়া একটু একটু জলের ছিট দিয়া শিলে দিহি করিয়া পিষিয়া লগু । ইহাতে এক ছুটা ক তিল, সিকি তোলtটাক বঁটি হলুদ ও সিকি তোলা মুন সব একত্রে মিশাইরা ভাল করিয়া ফেটাও ; তিনবার একটু জল অtছড়া দিয়া ফেটাইবে । বেগুন চাকা ঢাকা করিয়া কাটিয়া ধুইয়া রাখিবে। বেগুনগুলিতে এক চুটকি মুন মাখিয়া রাখ । কড়া করিয়া সরিব তেল চড়াও ; দুই মিনিট পয়ে, তেলের ধোয় বাহির হইলে, বেগুনে গোল মাখিয়া তেলের উপরে ছাড় ; লালচে রংএর ভাজা হইয়া গেলেই ঝাঝরি করিয়া ছকিয়া ভুগিবে। এক এক খোলা ভজিতে তিন কি সাড়ে তিন মিনিট করিয়া লাগিবে ।