পাতা:আর্য্যাবর্ত্ত (দ্বিতীয় বর্ষ - প্রথম খণ্ড).pdf/১৮৭

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


পুরাকালে প্ৰথম উভমে বিবাহের প্রধান উদ্দেশ্য ছিল, সন্তান উৎপাদন ও শৃঙ্খলাবদ্ধ রূপে শারীরিক বৃত্তি চরিতার্থকরা। চরমাবস্থায় কিন্তু বিবাহের সেই উদ্দেশ্য স্বীকার করা যায় না। ফ্ৰীজাতি ও পুরুষ জাতির স্বাভাবগত অনেক qLS BKYK LL YL GBBBBL LLL LLLLLS LLLLLL SS স্ত্রীজাতিতে আছে, যথা, মেহ, পরাজুগ্রহ, কোমলতা, সন্তানপ্ৰতিপালন তৎক পরতা, পরািজঃখকাতরতা, প্রভৃতি-বেণ্ডলি সেই পরিমাণে সাধারণঃ পুরুষজাতিতে স্বাভাবিক বিদ্যামান দেখিতে পাওয়া যায় না। পক্ষান্তরে পুরুষজাতিরও এইরূপ কতগুলি প্ৰকৰ্য আছে, যথা সাহস, দৃঢ়তা, অধ্যবসায়, নহোত্মকবান্দা এই বৃত্তি, যেগুলি সেই পরিমাণে শ্ৰীজাতির নাই। জন ইয়ার্ট মিল হয়ত বলিৰেন যে, স্ত্রীপুরুষ জাতির এই স্বাভাবগত বিভিন্নতা উভয়ের চিরন্তন প্ৰচলিত শিক্ষার ও অভ্যাসের বিভিন্নতাবশতঃ ঘাটিয়াছে এবং অভ্যাসের কিঞ্চিৎ অদল বদল করিয়া দিলে কয়েক পুরুষের মধ্যে সেই বৈসাদৃপ্ত উঠিয়া যাইবে। BDBDBDBS BD D DBB DBDBDS BD BDB uLuuL DDD BDD না, চুল বড় হয়, ভানদ্বয় বিবৃদ্ধ হয়, শরীরে লোম অল্প হয়, অস্থি কোমল থাকে, Vfeste cartillage, vettig frfeste colo physiological পুরুষেরাও তদ্রুপ। এখন কোমাৎ বলেন যে, যখন বিবাহদ্বারা দুই জাতি পরস্পর } সৰ্ব্বদা কাছাকাছি থাকে, তখন একের দেখিয়া অন্যের হীনতাগুলি কতকাদূর অপনীত হইতে থাকে। পুরুষের মেহবৃত্তি বৃদ্ধি পায়, নারীর অধ্যবসায় । প্ৰবল হয়, ইত্যাদি। এই সকল পরিবর্তন অপ্ৰাৰ্থনীয় নহে। ইহাতে সমা- . জের উপকারই আছে, এবং বিবাহ দ্বারা সেই অভিপ্ৰায়টি কিয়দংশে সিদ্ধ হয়। অতএব যদি বিবাহের প্রধান অভিপ্ৰায় ইহাই হইল, তবে রিপুর চরিতার্থতার সহিত বিবাহের সম্বন্ধ বিচ্ছিন্ন করিয়া দেওয়া যাইতে পারে। বিশেষতঃ এরূপ অনেক রুগ্ন, শীর্ণ জীৰ্ণ ব্যক্তি আছেন বাহাদিগের পক্ষে । সন্তানের উত্তাব উচিত নহে। আজিকার কালে একথা এক প্রকার স্বতঃসিদ্ধ । DDDD DLDDLS BBLDB DB BDBDBDB BDBDDB BDS DB BD DDBS কিছুমাত্র সন্দেহ নাই। স্বভাবের দোষও তদ্রুপ । কেবল আমরা অজাপি চিত- , দৌর্বল্য বশতঃ এই গুরুতর শারীরতত্বানুসারে চলিতে পারি না। কিন্ত । ইহা আমাদিগের বস্তুই লাজার ও স্বণার কথা। আমি স্বয়ং পক্ষাঘাতগ্ৰন্ত বা । স্বগ্নিরোগগ্ৰস্ত অথচ আরও অনেক সেই সেই রোগগ্ৰস্ত জীবকে পৃথিবীতে । আনিবার উদ্যোগ করিতেছি, ইহা অপেক্ষা জািষত কাণ্ড আর কি হইতে |