পাতা:আর্য্য-নারী দ্বিতীয় ভাগ.djvu/১৭৯

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে চলুন অনুসন্ধানে চলুন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।

o अरी-माट्टो । জিজা সন্ন্যাসীকে অন্তঃপুরে আনিতে আদেশ করিলেন। সন্ন্যাসী আসিলে জিজা তাহাকে প্রণাম করিতে উঠিয়াছেন এমন সময় সন্ন্যাসৗই জিজার পায়ে লুটিয়া প্রণাম করিলেন। জিজা চমকিত হইয়া সরিয়া কহিলেন,-“একি ঠাকুর ? আপনি সন্ন্যাসী, কেন আমাকে এমন পাপের ভাগী করিলেন ? আমি একেই বড় বিপদে আছি। জীবনসর্বস্ব শিকবা আমার দিল্লীতে কারাবন্দী ; অমঙ্গলে কেন আপনি অমঙ্গল বাড়াইতেছেন ?” সন্ন্যাসী হাসিয়া কঁাদিয়া কহিলেন,-“মা, চিনিতে পারিতেছি। না ? আমিই যে তোমার শিববা, আবার তোমার কোলে ফিরিয়া আসিয়াছি।” বিস্ময়বিস্মফারিত নোত্রে জিজা সন্ন্যাসীর দিকে চাহিলেন । তাই তো, সন্ন্যাসী তো সত্যই তঁর শিববা । সহসা আশার অতিরিক্ত এ আনন্দে, এত কাল রাত্রিদিন আকুল প্রার্থনার সহসা এই সফলতায়-জিজ আত্মহারা হইয়া কঁাদিয়া পুত্রকে বুকে ধরিলেন। মাতাপুত্র আনন্দের অশ্রুতে আনন্দের অশ্রু “মিলাইয়া নির্বাক্ নিঃশব্দ অবস্থায় পরস্পরের দৃঢ় আলিঙ্গনে বন্ধ হইয়া কিছুকাল রহিলেন। আত্মসম্বরণ করিয়া আবার মাতার চরণে প্রণাম করিয়া শিবাজি তাহ্র পলায়নের সকল ঘটনা বলিলেন । রাজপুরীতে ও রাজ্যময় শিবাজির নিরাপদে আগমন ‘সংবাদ প্রচারিত হইল। গৃহে গৃহে আনন্দ-উৎসব আরম্ভ হইল ।