পাতা:ঐতিহাসিক চিত্র - পঞ্চম পর্য্যায়.pdf/১৮৪

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


বিদ্রোহের পর বঙ্গের অবস্থা । S ዓ ዓ মীর্জা মোহাম্মদ হাদি নামক এক ক্ষমতাশালী কৰ্ম্মচারী দাক্ষিণাত্য প্রদেশের নানা উচ্চকাৰ্য্যে নিযুক্ত থাকা কালে, স্বীয় ন্যায়পরায়ণতায় nমাটের বিশ্বাসভাজন হইয়া উঠেন । হাদি ধৰ্ম্ম ও নীতি এমনি কঠোরতার সহিত অনুসরণ করিতেন যে, স্বীয় পুত্রের কোনও গুরুতর অপরাধ দর্শনে তাহাকে মৃত্যু-দণ্ডে দণ্ডিত করেন। (১) এই মীর্জা হাদি সৰ্ব্বশেষে উড়িষ্যার দেওয়ানা পদে নিযুক্ত হন, কিন্তু যুবরাজ উন্মান সমাটের বিরাগভাজন হওয়ায়, হাদি এক্ষণে কার্য তলব খাঁ উপাধি ভূষিত ১ইয়া, বাংলা দেশের দেওয়ানী পদে নিয়োজিত হইলেন । বাংলার দেওয়ানী ও নিজামতের মধ্যে তৎকালে প্রভূত পার্থক্য ছিল । দেশের রাজস্ব বিষয়ে দেওয়ানের সম্পূর্ণ কর্তৃত্ব ; পক্ষান্তরে বিচার ও সৈন্যবিভাগে নাজিমের অপ্ৰতিহত ক্ষমতা বিদ্যমান ছিল । কেবল রাজস্ব সংক্রান্ত একটা বিষয়ে নাজিমের কর্তৃত্ব ছিল,-নিজামতের ও নাজিমের নিজের ব্যয়ভার নির্বাহের নিমিত্ত যে জাগীর মুসরুট ও মনাসিব জাত নির্দিষ্ট 'চল তাহা, এবং কৰ্ম্মচারী প্রভৃতিগণকে যে রাজকীয় বৃত্তি প্ৰদত্ত ঠাইত সেই ভূমির রাজস্ব-সংগ্ৰহ ক্ষমতা, নাজিমের হস্তে ন্যস্ত থাকিত। সমাটের খাস দরবার হইতে প্ৰতি বৎসর যে দস্তুর-উল আমিল বা সাধারণ নিয়মাবলী প্ৰচারিত হইত, তাহার বিধান প্ৰতিপালন করিতে প্ৰত্যেক সবার নাজিম ও দেওয়ান উভয়েই তুল্যরূপে বাধ্য ছিলেন । কাল্পতলব খা যৎকালে বঙ্গদেশের দেওয়ানী পদে নিযুক্ত হন, তৎকালে তিনি সম্রাটের সাক্ষাৎমানসে দিল্লীতে উপনীত ছিলেন । তিনি যথা সম্বর জাহাঙ্গীর নগরে উপনীত হইয়া, সমাটের আদেশানুসারে রাজস্ব বন্দোবস্ত কাৰ্য্যে নিযুক্ত হন এবং সুবার আয় ব্যয়ের সহিত যুবরাজের সৰ্ব্বপ্রকার সংস্রবের মূলোচ্ছেদ করেন। যুবরাজ ইহাতে অত্যন্ত ক্রুদ্ধ ( ১ ) মোসলমান বিচারপতির এইরূপ ন্যায়নিষ্ঠার পরিচয় আমীর আলি প্ৰণীত স, রাসানদিগের ইতিহাসেও পাওয়া যায় ।