পাতা:কবিকঙ্কণ-চণ্ডী (প্রথম ভাগ) - চারুচন্দ্র বন্দ্যোপাধ্যায়.pdf/১৯৮

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


S)bሦክዖ কবিকঙ্কণ-চণ্ডী মামকাল-মানসান্ধ কষার প্রচলিত কথা। কাউকে বলা হয় তুমি মনে মনে কলা খাও, কটা কলা থাইলে তাক আমি বলিয়া দিব । তাৰ পৰ তাব সেই খাওয়া কলাব সঙ্গে একটা অঙ্ক যোগ করিয়া যোগফল জানিতে হয় ও যোগফল হইতে শেষেবা অঙ্ক বাদ দিলেই তাব ক’লা খাওয়াধ সংখ্যা বলা যায়। এই অঙ্ক নানা উপায়ে জটিলও ক’ব চলে। সে যাই হোক, যে ব্যক্তি কাল্পনিক কলা খায়, তার সেই কলাকে মািনকলা বলে । তাহা হইতে মনক লা। খাওযাব মানে-কল্পনায় সুখভোগ কবা, যে সুখেব বাস্তব অস্তিত্ব নাই। প্রঃ দেখি বিশ্বম্ভব যেন পাচশব জানি মনকলা খাহা । -লোচনদাসেব চৈতন্যমঙ্গল, আদিখণ্ড । भञ्छ्रतः--न ? v/মসজ, মজ্জ। বৌদ্ধগান ও দোহায্য মজ্জা ধাতু, শ্ৰীকৃষ্ণকীৰ্ত্তনে মজ ধাতু। সুপুৰুষ দশনে স্ত্রীলোকদিগকে দিয়া পতিনিন্দ কবানো প্ৰাচীন কাব্যোব একটা মামুলি প্রথা হইযা দাড়াইয়াছিল। জগৎ জীবনেব মনসাব গীতে লখিন্দবেব রূপ দেখিয়া, ধৰ্ম্মমঙ্গলে লাউসেনেব রূপ দেখিয়া, অন্নদামঙ্গলে সুন্দবেবি ৰূপ দেখিয়া ও অন্যান্য বহু কাব্যে বমণীগণেব পতিনিন্দ আছে । এমনকি জয়ানন্দেব চৈতন্যমঙ্গলে চৈতন্যদেবেবি ৰূপ দেখিয। নাবাদে বা পতিনিন্দা আছে। স্ত্রীলোকদেব দিয়া এইরূপে পতিনি নদী ক বাইয়া স্ট্রীচবিত্ৰকে হীন ও হেয কবি ত হইয়াছেই, স্ত্রীলোকদেব নৈতিক বলে বা প্ৰতি অশ্ৰদ্ধা দেখাইয়া সমাজকে ও অধঃপাতে ফেলা হইয়াছে ও দেবকাহিনীকে শুধু মৰ্ত্ত নয়, হেয় কবিয়া ছাড়া ত ইয়াছে। ইঠা Epic বা মহাকালোব একে বাবে উলটা পিঠ । এখনকাব কোনো কবি এমন কবিতে পাবে না, তাব কাবণ সেকালেৰ তুলনায় একালেব outlook ঢ়েব উন্নত ও প্ৰসাবিত হইয়াছে । শিবেব মোচন ৰূপ দেখিয়া নাৰীগণেব পতিনিন্দাব মূল—মৎস্যপুবাণ, ১৪৫ व्ञJम्रं, 8 १०-8१४z Cक 1 দগ্ধমনোভাব এষ। পিনাকী কাময়তে স্বয়মেদ বিহুৰ্ত্তম। কাচিদপি স্বয়মেব পতন্তী প্ৰাহ পাবাং বিবাহশ্বলিতাঙ্গীম ! ইত্যাদি। কিন্তু কবিকঙ্কণের চণ্ডীমঙ্গলেব এই পতিনিন্দিার আদর্শ মাণিক গাঙ্গুলিব ধৰ্ম্মমঙ্গলে ( সাহিত্যপরিষৎ সংস্করণ ৮৫ পৃষ্ঠায় ) দেখিতে পাওয়া যায়। LTSLLSSLSLLS LSGSSSLSLLLLLSLLGLLLGSGSSLSLLLLLL