পাতা:কবিকঙ্কণ-চণ্ডী (প্রথম ভাগ) - চারুচন্দ্র বন্দ্যোপাধ্যায়.pdf/২০৪

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


8 কবিকঙ্কণ-চণ্ডী পরে যখন রুদ্র-অগ্নি রুদ্র-শিবে পরিণত হইলেন, তখন রুদ্ৰপুত্র ও শিবপুত্র সমার্থক হইল। কিন্তু শিবের পুত্ররূপে জন্মলাভের উপাখ্যানেও অগ্নি মধ্যস্থ থাকিলেন ; অগ্নি ( অথবা বায়ু-স্কন্দপুরাণ, নাগরখণ্ড ৭০ অধ্যায়) হরপার্বতীয় রীতিবিম্ব ঘটাইলে শিববীৰ্য্য অগ্নিতে নিক্ষিপ্ত হয় ; অগ্নি তাহ ধাবণ করিতে অক্ষম হইয় গঙ্গাজলে নিক্ষেপ কবেন; এবং সেখানে কৃত্তিকা প্ৰভৃতি ছয় নক্ষত্র কুমারকে গোপনে পালন কবেন। বলিয়া স্কন্দের নাম হয় গুহ ও কাৰ্ত্তিকেয়। কুমাবজন্মের মধ্যস্থ হইয়া গঙ্গা মহাদেবের পত্নী হইয়া গেলেন ( রামায়ণ, বালকাণ্ড, ৩৬, ৩৭ অধ্যায় ) { কাৰ্ত্তিকেয়ের সঙ্গে ছয় সংখ্যার ঘনিষ্ঠ যোগ দেখা যায়। সপ্তর্ষিব ছয় পঞ্জীব রূপ ধবিয়া স্বাহী স্কন্দেব জন্ম-হেতু হন। কুমারের ছয় মুণ্ড। তার স্ত্রী ষষ্ঠী। তাকে পালন করেন কৃত্তিকা প্ৰভৃতি ছয় নক্ষত্ৰ। ছয় দিনের দিন তিনি তাবকাসুরকে বধ করেন। খৃষ্টপূর্ব দ্বিতীয় শতাব্দীতে যখন শকেবা এদেশে আসে, তখন তাবা স্কন্দকে সূৰ্য্যালুচিব করিয়া পূজা কবিতে আবন্ত কবে। চতুর্থ শতাব্দীব্য পরে গুপ্ত-সমাটদেব উপব স্বন্দ কিঞ্চিৎ প্রভাব বিস্তাব কবেন; গুপ্ত রাজাদের মধ্যে কুমারগুপ্ত স্কন্দগুপ্ত প্ৰভৃতি নাম পাওয়া যায়। কালিদাসের সময় স্কন্দপুজা বহুপ্রচাবিত হয়। দক্ষিণ প্রদেশেব চালুক্য রাজারা সপ্তম শতাব্দীতে স্কন্দপুজা বিস্তারিত করেন। কিন্তু তখনও একদল লোক স্কন্দকে দেবতা বলিয়া স্বীকার করিতে চাহিতেছিল না।--মৃচ্ছকটিক, দশকুমাবাচবিত প্ৰভৃতি গ্রন্থে স্কন্দকে চোরেব দেবতা রূপে বর্ণনা করা হইয়াছে। স্কন্দমহিমা প্ৰচাবেব জন্যই রচিত স্কন্দপুরাণেও কুমারনাথ চোরের দেবতা । ব্ৰহ্মাণ্ডপুরাণে ও বরাহপুরাণে ( ২৫ অধ্যায়) স্কন্দ ও শিব অভিন্ন। মৎস্যপুবাণে ( ১৬৮ অধ্যায়ে ) ষড়মুখ কুমার পাৰ্ব্বতীর কুক্ষি ভেদ করিয়া উৎপন্ন হন। বঙ্গদেশের প্রাচীনতম ধৰ্ম্ম ছিল স্কন্দপূজা (রায় সাহেব নগেন্দ্ৰনাথ বসু প্ৰাচ্যবিদ্যাDD BBD BBB BDBB DDBDDSDSD DBDDSSS SSBBBLBDS BDDDS DY কুমারস্বামীর প্রভাব প্ৰবল ; স্কন্দপুবাণ নিঃসন্দেহ দক্ষিণাত্যে বাচিত তাহার আভ্যন্তর celate risgir RE ll কাৰ্ত্তিকেয় আগে গণদেবতা ছিলেন। পরে প্রমথনাথ শিবের পুত্র ও গণপতি গণেশের জ্যেষ্ঠভ্ৰাতা হইয়া পড়েন। গণেশের ফাঁকিতে পড়িয়া ইনি বিবাহ করিতে পারেন নাই ( গণেশের জন্ম-ইতিহাস দ্রষ্টব্য)। এজন্য ইনি চিরকুমার-অথচ দেবসেনা এর পত্নী। ইনি দেবসেনাপতি, দেবসেনা রূপক মাত্র । মহাভারতের মতে এই দেবসেনা প্ৰজাপতি-দুহিতা, কিন্তু স্কন্দপুরাণের মতে মৃত্যু-দুহিতা (মহেশ্বরখণ্ড