পাতা:কবিকঙ্কণ-চণ্ডী (প্রথম ভাগ) - চারুচন্দ্র বন্দ্যোপাধ্যায়.pdf/৪২৩

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


দেবীর পরিচয় প্ৰদান 8SN9 কাৰ্ত্তিকেয়েব মযুবপুচ্ছে ও ব্ৰহ্মাব কেশজালে বিশোভিত ইন্দ্ৰাদি দেবগণেব মস্তক ঝুলিতেছিল। তঁাহাব দন্তপংক্তিরূপ। চন্দ্ৰশ্রেণী হইতে নিৰ্ম্মলকিবণপুঞ্জ বিনিঃস্থত হইতেছিল; তঁহাকে দেখিয়া মনে হইতেছিল যেন অন্ধকার-সাগরেব একটা উৰ্দ্ধবোখা উঠিয়াছে । * * * * * দেখিলাম। তিনি কখনও একবাহু, কখনও বহুবাহু হইতেছেন। কখনও অনন্ত বিশালবাহু উত্তোলন কবিয়া নৃত্য কবিতেছেন। তঁাহাব বাহুসমূহেব উৎক্ষেপণে এই জগৎক্লপ নৃত্যমণ্ডল কঁাপিয়া উঠিতেছে। কখনও তিনি একমুখী, কখনও বহুমুখী, কখনও মুখবিহীন হইতেছেন, কখনও বা অনন্ত ভয়ঙ্কবি মুখ দেখাইতেছেন। কখনও এক পদে অবস্থান কবিতেছেন, কখনও বহুপদা, কখনও বা অনন্তপদা, কখনও বা একেবাবে পদ শূন্য হইতেছেন। এই-সমস্ত ব্যাপাব দেখিয়া আমি ত্যাচাকে কালবান্ত্ৰি বলিয়া অনুমান কবিলাম। সাধুগণ চর্চাকেই ভগবতী কালী বলিয়া থাকেন। নির্বাণ-প্ৰকাবণ, উত্তবভাগ, ৮১ সর্গে-বাম কহিলেন, হে মুনিবাব । ভগবতী কালী নৃত্য কবেন কি নিমিত্তে ? আব্ব তিনি শাপ ফাল কুদাল মুষলাদিব। মাল্য ধাবণ কবেন কেন ? বশিষ্ঠ কহিলেন-সেই ভৈািবব র্যাহাকে চিদাকাশ শিব বলিয়া বলিলাম তাহাব যে মনোময়ী স্পনদশক্তি র্তাহাকেই তুমি মায়া বা কালী বলিয়া জানিও । ঐ মায়া ভঁহা হইতে অভিন্ন । ঐ ইচ্ছারদপিণী স্পন্দ্যশক্তি জীবার্থীদেব জীবনরূপে পৰিবণত চি ওয়ায় জীবচৈতন্য নামে সৃষ্টিব প্ৰকৃতি বা মূল কাবণ বলিয়া “প্ৰকৃতি’ নামে দশ্যাভাসে অনুভূতি উৎপত্তি প্ৰভৃতি বিকাবেব সম্পাদন করিয়া ‘ক্রিয়’ নামে অভিহিত হন। ঐ মায়া বউবাগ্নিজালাব ন্যায় দশ্যমান আদিত্যমণ্ডল তাপে শুষ্ক হইযা যান বলিয়া ‘শুস্কা’ নামে অভিহিত হন । উৎপলবৰ্গ অপেক্ষা ও প্ৰচণ্ড অর্থাৎ তীক্ষু বলিযা তিনি “চণ্ডিকা” নামে অভিহিত হন। একমাত্ৰ জযেব অধিষ্ঠান বলিযা ইহঁাব নাম ‘জয়া” । সৰ্ব্বসিদ্ধিব আশ্রম বলিয়া ইহঁাব নাম ‘সিদ্ধা’ ৷ সৰ্ব্বান বিজয়লাভ কবেন বলিয়া ইহঁাব নাম “বিজয়া, জয়ন্তী, জয়’ । বলে ইহঁাকে কেহ পাবাজিত কবিতে পাবে না বলিযা ইহঁাব নাম “অপবাজিতা”। ইহঁর মহিমা কেহ গ্ৰহণ কবিতে পাবে না বলিয়া ইহাব নাম “দুৰ্গা”। প্ৰণবোব সাব্বাংশশক্তি ও ইনি , এই জন্য ইহঁাব নাম “উমা” (উ, ম, অ =ওঁ ) । নামজপকাৰীদিগেব পাব মার্থস্বৰূপ বলিয়া ইহঁাব নাম ‘গায়ত্রী’ ; সৰ্ব্বজগৎ প্রসব কবেন বলিয়া ইহঁাব নাম ‘সাবিত্ৰী” । স্বৰ্গ, মোক্ষ প্ৰভৃতি নিখিল উপাসনাব জ্ঞানদৃষ্টিধাবা ইহঁ৷ হইতে প্রবাহিত বলিয়া ইহঁাব নাম ‘সব স্বতী’। ইনি গৌবাঙ্গী বলিয়া ইহঁাব নাম ‘গৌৰী’ ; যখন শিবশৰীরেব অনুষঙ্গিণী হন BBDBD BD DBB DBBDDBS SDDDSS BBBDBD DDBBDBDB DDD BBDLt