পাতা:কলিকাতা সেকালের ও একালের.djvu/১০৫০

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


a o Sు কলিকাতা সেকালের ও একালের। তৎকালে কেবল পাচজন মাত্র বিখ্যাত হইয়া উঠিয়াছিলেন। তাহাদিগের নাম—যাদবেন্দু শেঠ ও বৈষ্ণবদাস শেঠ, শোভারাম বসাক, বৃন্দাবন বসাক ও কৃষ্ণচন্দ্র বসাক। যাদবেন্দু শেঠ ও বৈষ্ণবদাস শেঠ অত্যস্ত ধৰ্ম্মানুরাগী ছিলেন । যাদবেন্দু শেঠ কলিকাতার বাঁশতলা গলির ৫ নং বাটীতে রাধাকান্তজীউ বিগ্রহ প্রতিষ্ঠা করেন। এই বিগ্রহটা পূৰ্ব্বে বিষ্ণুপুরের রাজার ছিল।" প্রবাদ আছে, বৈষ্ণবদাস শেঠ গঙ্গাজলে কলসী পূর্ণ করিয়া তাহার মুখ বন্ধ করিয়া এবং তঃগতে শীলমোহর করিয়া সোমনাথ ও স্বারকানাথ দেবের পূজার জন্য পাঠাইয়া দিতেন। তাছার প্রপৌত্রগণ পৰ্য্যস্ত এই প্রথা বজায় রাখিয়াছিলেন । - যাদবেন্দু শেঠের দুইজন বংশধর-চৈতন্যচরণ শেঠ ও আনন্দচন্দ্র শেঠও অত্যন্ত ধাৰ্ম্মিক ছিলেন। মহারাজা নবকৃষ্ণ দেব বাহাদুর চৈতন্যচরণের নানা সদগুণ ও বদান্ততার জন্য তাছাকে বিশেষ শ্রদ্ধা করিতেন। আনন্দচন্দ্র অত্যন্ত মিতব্যয়ী ছিলেন । তিনি মৃত্যুকালে চল্লিশ লক্ষ টাকা রাথিয়া যান। রাধাকৃষ্ণ শেঠের পুত্র মাধবচন্দ্র শেঠ, চৈতন্যচরণ ও আনন্দচন্দ্র উভয়েই সম্পত্তির উত্তরাধিকারী হন । যাদবেন্দুর আর একজন বংশধর নন্দলাল শেঠের পৌত্র, রাধাকান্ত শেঠ হিন্দুকলেজের প্রতিভাসম্পন্ন ছাত্র ছিলেন। স্যর রাজা রাধাকান্ত দেব বাহাদুর K. C. s. I. তাহাকে অত্যন্ত ভাল বাসিতেন । তাহার পুত্র প্রিয়নাথ শেঠ । তারিণীচরণ বসাক, শোভারাম বসাকের বংশধর রাধাকৃষ্ণ বসাকের পুত্র। বৃন্দাবনচন্দ্র বসাকের বংশধরগণ কলিকাভাতেই বাস করিতেছেন। কৃষ্ণচন্দ্র বসাকের বাসভবন বিডন স্কোয়ারের নিকট চিৎপুর রোডের উপর আজিও অবস্থিত রহিয়াছে। এই শেঠ ও বসাকবংশ কলিকাতার অতি প্রাচীন অধিবাসী। কলিকাতা প্রতিষ্ঠার পূর্বেও ইহার বেতড়ের হাটে, পটুগীজদিগের সহিত ব্যবসাবাণিজ্য করিতেন। জবচার্ণক জঙ্গলের মধ্যস্থিত স্থানে, কলিকাতার প্রাণপ্রতিষ্ঠা করিলে, শেঠগণ গোবিন্দপুরে ও স্বতালুটাতে বাস আরম্ভ করেন। প্রাচীন কলিকাতার ইতিহাসের সহিত এই শেঠ ও বসাকগণের নাম অবিচ্ছেদ্যভাবে সম্বন্ধ। এই বংশের পূৰ্ব্বোক্ত বৈষ্ণবচরণ শেঠ মহাশয় অতি ধাৰ্ম্মিক ও প্রাতঃস্মরণীয় ব্যক্তি ছিলেন। বৈষ্ণবচরণ শেঠ ও তাহার পূর্বপুরুষগণ ইষ্ট-ইণ্ডিয়া-কোম্পানীর সহিত বাণিজ্য ব্যবসায়ে