পাতা:কলিকাতা সেকালের ও একালের.djvu/১২৫

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


তৃতীয় অধ্যায়। նր(: অলিরিক্ত সাফল্যে, প্রতাপ অতিশয় গৰ্ব্বিত ও নিষ্ঠুর হইয়া উঠিলেন। তিনি গুহার প্রজাদের সামান্ত অপরাধের জঙ্গ, ভীষণ দও দিতে লাগিলেন। অতি তুচ্ছ অপরাধের জন্য, অপরাধীর শিরচ্ছেদের আজ্ঞা দিতে লাগিলেন। এই কারণেই, তাহার রাজলক্ষ্মী চঞ্চল হইয়া উঠিলেন।” প্রতাপ যখন যশোহরে যশোরেশ্বরীর প্রতিষ্ঠা করেন, তখন দেবী উগ্ৰহণকে স্বপ্নাদেশ দিয়া বলেন—“যতদিন না তুমি আমাকে চলিয়া যাইতে বলিবে— ততদিন আমি তোমায় ত্যাগ করিব না।” প্রতাপ যখন প্রজা-নিগ্রহে ব্যস্ত, সেই সময়ে যশোহরেশ্বরী তাহার প্রতি বিমুখ হইলেন। তিনি তাহার নিকট চিরবিদায় লইবার জষ্ঠ, তাহার কক্টামুৰ্ত্তি ধারণ করিয়া, প্রকাগু দরবার মধ্যে উপস্থিত হন । * প্রতাপ, একদিন রাজসভায় বিচারাসনে উপবিষ্ট । এক মেথরাণী, তাহার সম্মুখে, রাজবাড়ীর উঠান বর্ণটু দিয়াছিল—এজন্য প্রতাপ, তাহার এ ধৃষ্টতার জল্প, বড় রুষ্ট হইয়া, তাহার স্তনদ্বয় কৰ্ত্তন করিয়া দিবার আদেশ দেন । প্রতাপ যখন এই নিষ্ঠুর দণ্ডাজ্ঞা প্রদান করিতেছেন, সেই সময়ে যশোরেশ্বরী তাহার কন্যা মূৰ্ত্তি ধরিয়া, রাজ-সভামধ্যে উপস্থিত হন। প্রকাশ্ব রাজসভায় কন্যাকে উপস্থিত হইতে দেখিয়া, প্রতাপ ক্রোধে জলিয়া উঠিলেন। তিনি তখনই কন্যাকে বলেন—“যা—যা—এখান হইতে এখনই চলিয়া যা। আর তোর মুখ দেখিব না। এ পুরীর মধ্যেও তোর স্থান নাই।” এই সময়ে দেবী নিজমুৰ্বি পরিগ্রহ করিয়া, প্রতাপকে বলেন—“তুমি যখন আমার তাড়াইয়া দিয়াছ—তখন আর আমি এখানে থাকিব না। আমি চলিলাম !" মানসিংহ প্রতাপকে বন্দী করিয়া, জীবিতাবস্থায় দিল্লীতে বাদসাহের নিকট লইয়া যাইবার সংকল্প করিয়াছিলেন। জনশ্রুতি এই যে তিনি প্রতাপকে

  • For a time—says tradition, Pratapaditya, prospered exceedingly. He adorned his kingdom with noble buildings, made roads, built temples. dug tanks and wells and in fact, did everything that a soverign could do, for the welfare of his subjects. The limit of his kingdom, quickly extended, for he made war on his neighbours and came off victorious in every battle, till all the surrounding country, acknowledged his rule. Ultimately he declared himself independent of the Emperor of Delhi and so great was his power, that he managed to defeat one after another, the generals sent against him. He was a favorite to goddess Jessores— Wars, for her favour was at last withdrawn for 1'ratrpaditya swolen with

Pride, because very'tyranical with his subjects, beheading them for the least offence. B. Gazeteer 1’, 26. -