পাতা:কলিকাতা সেকালের ও একালের.djvu/২৯৮

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


২৬৬ কলিকাতা সেকালেরও একালের । হুগলী লুন্ঠন, বালেশ্বর ধ্বংস, থানা দুর্গ অধিকার, হিজলী অধিকার-ইজান ব্যাপার বড় সহজ কাজ নহে। চার্ণক বুঝিলেন, এইবার সাংঘাতিক দল আসিতেছে । মোগল যে সহজে এ সব ব্যাপার তুলিয়া যাইবে, ভাষা "কখনই সম্ভবপর নহে । o কিন্তু যে মোগলের ভয়ে, চার্ণক এত ব্যতিব্যস্ত, তাহারা এত ঘটনায় পরও সম্পূর্ণ নিশ্চেষ্ট । সম্রাট ঔরঙ্গজেব, তখন দক্ষিণাত্যের আরঙ্গাবাদে যুদ্ধকার্য্যে ব্যস্ত। মার্চমাসে র্তাহার নিকট এ সব সংবাদ পৌঁছিল। তিনি ইহাতে তিলমাত্র বিচলিত হইলেন না। কোথায় হিজলীর স্থায় একটু ক্ষুদ্র গওগ্রাম, কোথায় মুদূর বঙ্গদেশে—যুদ্র নগর হুগলী, এ সব সংবাদ তিনি কিছুই রাথিতেন না। কিন্তু যখন সরকারে এত্তেলা পৌঁছিয়াছে আর হুগলীর শাসনকর্তা যখন ইংরাজদের বিরুদ্ধে এত্তেলা করিয়াছে, তখন এই ব্যাপার তাহার মনোযোগ আকর্ষণ করিল। তিনি মীরমুলীকে ডাকইয়া, বঙ্গদেশের ম্যাপ আনাইলেন। নক্সাখানি একবার দেখিয়া ক্রকৃঞ্চিত, করিলেন । কিন্তু তখন তিনি দীক্ষিণাত্যের মহাযুদ্ধে ব্যস্ত, কাজেই এ ক্ষুদ্র ব্যাপার, তাহার বিশেষ মনোযোগ আকর্ষণ করিল না—তত্ৰাচ ইংরাজদের বিরুদ্ধে সুবেদারের আরজীর উপর একটা হুকুম হইয়া গেল। * আর এ দিকে নবাব সায়েস্তার্থ –তিনিও হুগলীর ব্যাপারটকে ততটা হানি-জনক বলিয়া বিবেচনা করিলেন না বটে, কিন্তু ইংরাজদিগকে হিজলী হইতে বিতাড়িত করিবার জন্য, প্রচুর পরিমাণে অশ্বারোহী ও পদাতিক সেন, প্রেরণ করিলেন। তাহার দৃঢ় বিশ্বাস হইল, মোগল বাহিনী হিজলীতে উপস্থিত হইয়াই, ইংরাজদিগকে বঙ্গদেশ হইতে সমুদ্রের দিকে তাড়াইয়া দিবে। মার্চ ও এপ্রেল মাসে, হিজলীতে ইংরাজের আর এক নূতন বিপত্তি' উপস্থিত হইল। এই গ্রীষ্মকালে, হিজলীবন্দরে ওলাউঠ প্রভৃতি ব্যাধির প্রকোপ বড়ই বৃদ্ধি হয়। ইংরাজপক্ষের মধ্যে, এই সমস্ত রোগ দেখা দিল । জাহাজে যে সমস্ত গোর ছিল বা হিজলী সহরে যে সমস্ত ইংরাজ ছিল, তাহাদের মধ্যে অনেকেই পীড়িত হইয়া পড়িল । পীড়ার প্রাবগে মড়ক দেখা দিল । প্রায় ১৮০ জন সেনা, শয্যাশায়ী অবস্থায় থাকিয় কাজ কর্থের বাহির হইয়া পড়িল । খাদ্য দ্রব্যও অতি দুলভ হইল । সুলভের মীে & Hedge's Diary. II. 65. 96.