পাতা:কলিকাতা সেকালের ও একালের.djvu/৪৩৮

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


<tBeR কলিকাতা সেকালের ও একালের । সঙ্গে ইংরাজের কলিকাতার পাশ্ববর্তী ৩৮ খানি গ্রামের জমিদারী স্বত্ব কিনিবার অনুমতিও পাইলেন । সম্রাট, রোগ মুক্ত হওয়া পৰ্য্যস্ত হামিলটনকে একদিনের জন্য ভুলেন নাই। তিনি তাহার চিকিৎসা-নৈপুণ্যে বড়ই প্রীত হইয়াছিলেন, এজন্য তাহাকে প্রায়ই দরবারে উপস্থিত হইতে হইত । হামিলটনের উপর বাদসহ এতদূর সন্তুষ্ট হন,—যে তিনি তাহাকে দিল্লীতে রাজ-পরিবারের চিকিৎসকরূপে নিয়োগ করিবার বাসনা প্রকাশ করেন। ডাক্তারসাহেব কিন্তু দিল্লীতে থাকিতে ইচ্ছুক ছিলেন না। আবার হামিলটনকে ছাড়িয়া না দিলেও, দৌত্যাভিযানের কৰ্ত্তীর কলিকাতায় ফিরিতে পারেন না। হামিলটন পরিশেষে অঙ্গদ্যোপায় হইয়া সম্রাটকে বলিলেন,—“আমি বহুদিন দেশত্যাগী। আপনার অনুমতি পাইলে, আমার স্ত্রী পুত্রগণকে একবার দেখিয়া আসি । এখানে যে সমস্ত ঔষধ পাওয়া যায় না, বিলাতে গেলে সে সমস্ত অদ্ভূত ফলপ্রদ ঔষধগুলিও আপনার জষ্ঠ আনিতে পারিব। আর দেশ হইতে একবার ঘুরিয়া আসিয়াই আমি সাহান্‌সাহের অধীনে চাকুরী গ্রহণ করিব।” সম্রাট ইহাতে আর কোনরূপ"আপত্তি করিতে পারিলেন না । হামিলটন দলবল সহ কলিকাতায় ফিরিয়া আসিলেন। দিল্লী হইতে ফিরিবার পরই তিনি 'সাংঘাতিক রোগে পীড়িত হইয়া, এই কলিকাতাতেই ইহলীলা শেষ করেন। যে সমাধি-ক্ষেত্রে চার্শকের সমাধি হইয়াছিল, সেই সেন্ট জন সমাহিত হয়। আজও এ সমাধিস্থান বর্তমান। পাঠক, ইচ্ছা করিলে দেখিয়া আসিতে পারেন ।

  • হামিলটনের স্মৃতিও ক্রমে ক্রমে বিস্তুতিগর্ভে নিমজ্জিত হইতেছিল। তাহার মৃত্যুর ৰাট বৎসর পরে, গভর্ণর জেনারেল ওয়ারেণ হেষ্টিংস সাহেব কর্তৃক তাহার স্মৃতিফলক নূতন তাৰে নিৰ্ম্মিত হয়। এই সময়ে সেন্টজন গির্জার ভিত্তিপ্রতিষ্ঠা হইয়াছিল। হামিলটন ইংরাজ জাতির জনা যে স্বার্থ ত্যাগ করিয়া গিয়াছেন—তাহ প্রকৃতই গৌরবজনক ও অসাধারণ ভাবিয়া হেষ্টিংস সাহেব—সরকারী ব্যয়ে তাহার স্মৃতি-ফলুকট স্বর্ণীক্ষরে খোদিত করিয়া দেন। এই স্মৃতিফলকটার একাংশ ইংরাজী ও অপরাংশ পারসীতে লিখিত। ইংরাজী অংশটুকু এই— “Under this stone lyes interred the body of William Hamilton who do parted this life, the 4th December 1717. His meflory onght to be deo to his nation fo! the credit he gained the English, in curing Farrukse" the present King of Indoston, of a malignant distemper, by which * made his own name famous at the court of that great Monarch and wit"