পাতা:কলিকাতা সেকালের ও একালের.djvu/৮১০

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


११8 কলিকাতা সেকালের ও একালের । করিতেন। এই গির্জ{—কারণগুরের নিজের সম্পত্তি। পাদরী जाग्रत्तः ব্যক্তিগত দেনার দায়ে, ১৭৮৭ খ্ৰীঃ অব্দে এই গির্জা আদালতের হুকুমে শীল করা হয়। কিন্তু গ্রান্ট সাহেব দশ হাজার টাকা দিয়া গির্জাটা নিজের দখলে আনেন। এখনও এই গির্জার মধ্যে র্তাহার নামে একটা ট্যাবলেট বা স্মৃতিফলক বর্তমান । ৭৮ বৎসর বয়সে, লণ্ডনে তাহার মৃত্যু হয়। ১৮৩৪ হইতে ১৮৩৯ খৃঃ অদ পর্য্যন্ত তিনি উপনিবেশ সমূহের সেক্রেটারির পদে নিযুক্ত ছিলেন। ১৮৩৫ খৃঃ অব্দে ইনি লর্ড উপাধি প্রাপ্ত হন। ওয়েষ্ট্রন-স্ত্রাঢ় । আজকালকার ওয়েষ্ট্রন-স্ট্রীট সকলেরই পরিচিত। এই পথ, বেণ্টিঙ্ক-ষ্ট্রট হইতে আরম্ভ হইয়া, কপালিটোলা পল্লীতে মিশিয়াছে। চালর্স ওয়েষ্ট্রনের নামে এই গলির নামকরণ হইয়াছিল। ওয়েষ্টন, সেকালের কলিকাতার একজন নামজাদা ব্যক্তি ছিলেন। লালবাজারের সন্নিহিত, টিরাটাবাজারের একটা বাড়ীতে, তাহার জন্ম হয়। র্তাহার পিতা—সেকালের মেয়রকোর্টের রেকর্ডার বা সেরেস্তাদার ছিলেন । নন্দকুমারের মোকদ্দমায়, এই ওয়েষ্টন সাহেব একজন জুরীরূপে নির্বাচিত হইয়াছিলেন। দক্ষিণ পার্ক-ষ্ট্রীট গোরস্থানে ইহার সমাধি হয়। ৭৮ বৎসর বয়সে, সেকালের এই নামজাদা দানশীল ব্যক্তি ইহলোক ত্যাগ করেন। ওয়েষ্টন সাহেব, সেকালের কলিকাতার একজন বিখ্যাত দাতা ছিলেন। তিনি দরিদ্র হিন্দু, মুসলমান, ইংরাজ, সকলেই সমানভাবে অর্থ বিতরণ করিতেন । জীবনের প্রারম্ভে, তিনি ইতিহাস-বিখ্যাত হলওয়েল সাহেবের অধীনে চিকিৎসকের শিক্ষানবিশী করিয়াছিলেন । হলওয়েল সাহেব র্তাহাকে একবার বিলাতে লইয়া যান। হলওয়েল, ভবিষ্যতে সিভিলিয়ান রূপে, কোম্পানীর অধীনে কাৰ্য্যে নিযুক্ত হইলে, ওয়েষ্ট্রনও ডাক্তারী ব্যবসায় ছাড়িয়া দেন। সেরাজের কলিকাতা আক্রমণের সময়, ওয়েষ্টন দুর্গ-মধ্যে উপস্থিত থাকিয়া যুদ্ধ করিয়াছিলেন। পরিশেষে উপহার প্রভু হলওয়েলের মালামাল, নিরাপদ স্থানে পৌছাইয়া দিবার জন্য, সেরাজ কর্তৃক কলিকাতা দুর্গাধিকারের আগের দিনে, তিনি গোপনে দুর্গের বাহিরে চলিয়া যান। এজন্য তিনি অন্ধকূপ-হত্য ব্যাপার হইতে বাচিয়া গিয়াছিলেন। ওৱেষ্টন, র্তাহার প্রভু হলওয়েলের মালামাল লইয়া, কস্তায় ন} গিয়া বুদ্ধি প্রকাশ করিয়া, চুচুড়ার ডছুদিগের ফ্যাক্টারীতে আশ্রয় গ্রহণ করেন । হলওয়েল