পাতা:কলিকাতা সেকালের ও একালের.djvu/৯২৬

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


কলিকাতা সেকালের ও একালের । مراسbميا স্বমুখে ব্যক্ত করিয়া গিয়াছেন। এই ইম্পিরিয়াল-লাইব্রেরী গৃহ খুলিবার দিন, তিনি যে বক্তত করেন, তাহার সারাংশ এই—“চারি বৎসর পূৰ্ব্বে যখন আমি প্রথম কলিকাতায় আসি, তখন আমার মনে গবর্ণমেণ্ট-অফিস এবং সাধারণের কার্য্যে ব্যবহৃত বাটীগুলি দেখিবার, একটা প্রবল বাসনা উদিত হয়। আমি শুনিয়াছিলাম, এই সহরের মধ্যে মেটকাফ-হল বলিয়া একটা সুবৃহৎ বাট আছে ও তাহাতে একটী সাধারণ-পাঠাগারও প্রতিষ্ঠিত। একদিন আমি সেই বাট দেখিতে যাই। লাইব্রেরীর সিড়িগুলি অতিক্রম করিবামাত্র, প্রথমতলে “এগ্রিহটি কলচরাল-সোসাইটার” অফিস-গৃহ, আমার চক্ষে পড়ে। ইহার অবস্থা তত সন্তোষজনক নহে। তৎপরে উপরে গিয়া লাইব্রেরীর অবস্থা যাহা দেখিলাম, তাহ আরও শোচনীয় ! পুস্তকগুলির অবস্থা অতি বিশৃঙ্খল। পুস্তকের মধ্যে উপন্যাসের অংশই অত্যধিক। অনেক পুস্তক শোচনীয় ভাবে ছিড়িয়াও গিয়াছে। দস্তুরমত বাধানো নাই। পাঠাগারের পাঠক সংখ্যা দুই চারিজন। গৃহটীও পারাবতসস্কুল। ইহার পর একদিন আমি গবর্ণমেণ্টের হোম-ডিপাট মেন্টের লাইব্রেরীট দেখিয়া আসি । এই লাইব্রেরী, ভারত-গবর্ণমেণ্টের খাস, সম্পত্তি। এখানে সাধারণের কোনরূপ প্রবেশাধিকার নাই। কেবল উচ্চপদস্থ সরকারী কৰ্ম্মচারীরাই, এই পাঠাগারের পুস্তকাদি ব্যবহার করিতে সক্ষম। এইরূপ ব্যাপারসমূহ দেখিয়া, আমার মনে একটা উচ্চঅঙ্গের ইম্পিরিয়েললাইব্রেরী” বা রাজকীয়-পাঠাগার স্থাপনের বাসনা জন্মে। আমি ভারতগবর্ণমেণ্টের পক্ষ হইতে, লাইব্রেরীর সেয়ার-হোলডার ও এগ্রিহর্টিকলচরাল সোসাইটীর সদস্যগণের নিকট, এই বাট ও লাইব্রেরী ক্রয় করিবার প্রস্তাব করি। ঐ সকল কাৰ্য্য নিম্পন্ন হইয়া গেলে, এই বাটটির আমূল সংস্কার করাইয়া, ইহার চেয়ার টেবিল আলমারী পর্য্যস্ত নূতনভাবে প্রস্তুত করাইয়া, সম্পূর্ণ নূতন প্রণালীতে এই পাঠাগার স্থাপন করিয়াছি। এই সময়ে লাট-কেন্সিলে এ সম্বন্ধে একটী আইন পাশ করাইয়া, লাইব্রেরীটিকে গবর্ণমেন্টের সম্পত্তিতে পরিণত করা হয়। ভারত-গবর্ণমেণ্টকে সুপারিস করিয়া, ইহার কার্য্যনিৰ্ব্বাহের জন্য বাৎসরিক একটা অর্থ সাহাষ্যেরও বন্দোবস্ত করি। ইহার পুরাতন অব্যবহার্য্য অসার পুস্তকগুলিকে তৎপরে দূরীভূত করিয়া, অনেক টাকার নূতন পুস্তক কেন হয়। এখন এই পাঠাগারে এক লক্ষের উপর পুস্তক অাছে।” লর্ড কজনের বক্ততার মর্ধার্থ হইতে, পাঠক বর্তমান ইম্পিরিয়াল