পাতা:কাব্যগ্রন্থ (তৃতীয় খণ্ড).pdf/১৯১

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


দেখিতে পাইব ব্যোমে মহাকাল ছন্দে ছন্দে বাজাইছে তাল, দশ দিকবধু খুলি কেশজাল নাচে দশদিক হ’তে ।” এতেক বলিয়া ক্ষণপরে কবি করুণ কথায় প্রকাশিল ছবি পুণ্যকাহিনী রঘুকুলরবি রাঘবের ইতিহাস । অসহ দুঃখ সহি নিরবধি কেমনে জনম গিয়েছে দগধি, জীবনের শেষ দিবস অবধি অসীম নিরাশ্বাস । কহিল, বারেক ভাবি দেখ মনে সেই একদিন কেটেছে কেমনে যেদিন মলিন বাকল বসনে চলিলা বনের পথে, ভাই লক্ষণ বয়স নবীন, স্নান ছায়াসম বিষাদ-বিলীন নববধূ সীতা আভরণহীন উঠিলা বিদায়রথে । রাজপুরী মাঝে উঠে হাহাকার, প্রজা কঁাদিতেছে পথে সারেসার, > “ጓ ®