পাতা:কাব্যগ্রন্থ (তৃতীয় খণ্ড).pdf/২৮২

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


কখনো উদার গিরির শিখরে, কতু বেদনার তমোগহবরে চিনি না যে পথ সে পথের পরে চলেছি পাগল বেশে । কতু বা পন্থ গহন জটিল, কৰ্ভু পিচ্ছল ঘনপঙ্কিল, কতু সঙ্কট-ছায়া-শঙ্কিল, বঙ্কিম তুরগম,— খর কণ্টকে ছিন্ন চরণ, ধূলায় রৌদ্রে মলিন বরণ, আশে পাশে হ’তে তাকায় মরণ, সহসা লাগায় ভ্ৰম । তারি মাঝে বাশি বাজিছে কোথায়, কঁাপিছে বক্ষ সুখের ব্যথায়, তীব্র তপ্ত দীপ্ত নেশায় চিত্ত মাতিয়া উঠে । কোথা হ’তে আসে ঘন স্বগন্ধ, কোথা হ’তে বায়ু বহে আনন্দ চিন্তা ত্যজিয়া পরাণ অন্ধ মৃত্যুর মুখে ছুটে । ক্ষ্যাপার মতন কেন এ জীবন ? অর্থ কি তা’র, কোথা এ ভ্রমণ ? ২৩৩