পাতা:কাব্যগ্রন্থ (পঞ্চম খণ্ড).pdf/১৫৭

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


বিদায়-অভিশাপ কচ চিরজীবনের সনে তা’র নাম গাথা হ’য়ে গেছে । দেবযানী আছে মনে যেদিন প্রথম তুমি আসিলে হেথায় কিশোর ব্রাহ্মণ, তরুণ অরুণপ্রায় গৌরবর্ণ তনুখানি স্নিগ্ধ দীপ্তিটালা, চন্দনে চৰ্চিচত ভাল, কণ্ঠে পুষ্পমালা, পরিহিত পট্টবাস, অধরে নয়নে প্রসন্ন সরল হাসি, হোথা পুষ্পবনে দাড়ালে আসিয়া কচ তুমি সদ্য স্বান করি দীর্ঘ আর্দ্র কেশজালে, নব শুক্লাস্বরী জ্যোতিস্নাত মূৰ্ত্তিমতী উষা, হাতে সাজি একাকী তুলিতেছিলে নব পুষ্পরাজি পূজার লাগিয়া । কহিনু করি বিনতি “তোমারে সাজে না শ্রম, দেহ অনুমতি ফুল তুলে দিব দেবী ।” >8○