পাতা:কালান্তর - রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.pdf/৯২

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


কালান্তর কিন্তু মানুষ যে মাছৰ। তাকে বাচিতে হক্টৰে, বাড়িতে হইবে, চলিতে হইবে। তাই এ কথাটা মানিতেই হইবে যে, দেশের সম্বন্ধে দেশের লোকের চেষ্টাকে নিরুদ্ধ করিয়া যে নিরানন্দের জড়ভার দেশের বুকে চাপিয়া বলিতেছে সেটা শুধু যে নিষ্ঠুর তাহা নহে, সেট রাষ্ট্রনীতি হিসাবে নিন্দনীয় । আমরা যে অধিকার চাহিতেছি তাহ ঔদ্ধত্য করিবার বা প্রভূত্ব করিবার অধিকার নহে। আমরা সকল ক্ষুধাতুরকে ঠেকাইয়া জগৎসংসারটাকে একলা ভূহিয়া লইবার জন্ত লম্ব লাঠি কাখে লইতে চাই না ; যুদ্ধে নরঘাত সম্বন্ধে বিশ্বের সকলের চেয়ে বড়ো শক্তি, বড়ো উদ্যোগ ও বড়ো উৎসাহ রাখি বলিয়া শয়তানকে লজ্জা দিবার ছরাকাঙ্ক্ষা আমাদের নাই ; নিরীহ হিন্দু বলিয়া প্রবল পশ্চিম আমাদের উপরে যে শ্লেষ প্রয়োগ করে তাছাকেই তিলক করিয়া আমাদের ললাটকে আমরা লাঞ্ছিত রাখিব ; আধ্যাত্মিক বলিয়া আমাদের আধুনিক শাসনকর্তারা আমাদের পরে যে কটাক্ষবর্ষণ করিয়াছেন তারই শরশয্যায় শেষ পর্যন্ত শয়ান থাকিতে আমরা ছুঃখ বোধ করিব না— আমরা কেবলমাত্র অপেন দেশের সেবা করিবার, তার দায়িত্বগ্রহণ করিবার স্বাভাবিক অধিকার চাই । এই অধিকার হইতে স্রষ্ট হইয়া আশাহীন অকৰ্মণ্যতার দুঃখ ভিতরে ভিতরে অসহ হইয়াছে। এইজন্তই সম্প্রতি জনসেবার জন্ত আমাদের যুবকদের মধ্যে একটা প্রবল আগ্রহ দেখিতে পাই । নিরাপদ শাস্তির আওতায় মাছুষ বঁাচে না । কেননা, যেটা মামুষের অন্তরতম আবেগ তাহা বাড়িয়া চলিবার আবেগ । মহং লক্ষ্যের প্রতি আত্মোৎসর্গ করিয়া দুঃখ স্বীকার করাই সেই বাড়িয়া চলিবার গতি । সকল বড়ো জাতির ইতিহাসেই এই গতির স্থনিবার আবেগ ব্যর্থতা ও সার্থক্যের উপলबकूब्र १८ष शजिब्रl, एकमाहेब, बाषा डांडिब-हूब्रिब्र, कब्रिब्रा नज़िতেছে। ইতিহাসের সেই মহৎ দৃশু আমাদের মতো পোলিটিকাল ケ8