পাতা:কাশীদাসী মহাভারত.djvu/২৬৮

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


* ○○? ধ্যায়েং সৰ্ব্বজনেপিলতাৰ্থফলদাং রামপ্রিয়াং জানকীং । [ মহাভারত । ইন্দ্র চন্দ্র নক্ষত্র যতেক স্বৰ্গবাসী । ধৰ্ম্ম আচরিয়ে সবে স্বৰ্গ মধ্যে বসি ॥ জপ তপ যজ্ঞ দান ব্রত শিষ্টাচার । বfঞ্ছা না করিলে নাছি ফল পায় তার ॥ পূৰ্ব্বে সাধুগণ সব গেল যেই পথে । মম চিত্ত বিচলিত না হয় তাহাতে ॥ তুমি বল বনে ধৰ্ম্ম করিবে কেমনে । যথাশক্তি তত আমি করিব কাননে ॥ অস্য পাপ কৈলে প্রায়শ্চিত্ত আছে তার । ধৰ্ম্মনিন্দ কৈলে প্রায়শ্চিত্ত নাহি তার ॥ হর্তা কর্তা যেইজন সবার ঈশ্বর । যাহার স্বজন এই যত চরাচর ॥ আমি কোন কীট তারে অমান্য করিতে । ভ্ৰম নাছি আমার ইহাতে কোন মতে ॥ যুধিষ্ঠিরের প্রতি ভামের দাক । যুধিষ্ঠির বাক্য শুনি ভীম ক্রুদ্ধতর । ; করেন ধৰ্ম্মের প্রতি কৰ্কশ উত্তর ॥ শুন মহারাজ আমি করি নিবেদন । বীর পুরুষের ধৰ্ম্ম ত্যজ কি কারণ ॥ ক্ষত্রিয় প্রধান ধৰ্ম্মতেজ দেখাইবে । ভুঞ্জবলে রিপু জিনি পৃথিবী ভুঞ্জিবে । কহ রাজা এই কৰ্ম্ম সম্মত কাহার । গাবিন্দের মত কিব। দ্রুপদ রাজার ॥ ! ক্ষত্রধৰ্ম্ম নহে এই দ্বিজ-আচরণ । ক্ষত্রধৰ্ম্মে যুদ্ধে অরি করিবে নিধন ॥ দুষ্টকৰ্ম্ম দুষ্টবুদ্ধি রাজা দুর্য্যোধন । তাহারে মারিলে পাপ নাহিক রাজন ॥ জাজ্ঞা কর নরপতি প্রসন্ন হইয়া । এক্ষণে পৃথিবী দিব শক্রকে মারিয়া ॥ ভীমের প্রতি যুধিষ্ঠিরের প্রবোধ-বাক্য । রাজা বলে ভীম যাহা করিলে বিচার । কপট এ ধৰ্ম্মচিত্তে না লয় আমার ॥ মেরুসম ধৰ্ম্ম আমি লঙ্ঘিব কেমনে । কতু নহে বৈরাজয় পাপ আচরণে ॥ --- ধৰ্ম্মসখা বিনা নহে সহজে বিজয় । বেদের লিখন যথা ধৰ্ম্ম তথা জয় ॥ হেন ধৰ্ম্ম ত্যজিয়া অধৰ্ম্ম আচরিলে । কহ ভীম শত্রুজয় হুইবে কি ভালে ৷ যুধিষ্ঠির ভীম সহ কথার সময় । তাইলেন তথা সত্যবতীর তনয় ॥ মঞ্জনের শিবারাধনাৰ্থ হিমালয় পৰ্ব্বতে গমন ব্যাসেরে করেন পূজা পাণ্ডুপুত্ৰগণে । আশীৰ্ব্বাদ করি মুনি বসেন আসনে । যুধিষ্ঠিরে চাহি বলিলেন মুনিবর। শক্ৰগণে ভয় তব হয়েছে অন্তর ॥ তোমার হৃদয় ভাব জানিলাম আমি ; সে কারণে হেথা আইলাম শীঘ্ৰগামী | অশুভ সময় গেল হুইল সুকাল । এক বিদ্যা দিব আমি লহ মহীপাল ॥ এই বিদ্যা হৈতে হবে শিব দরশন • তোমারে সদয় হইবেন ত্রিলোচন ॥ " নরঋষি মূৰ্ত্তি তব ভাই ধনঞ্জয় । এই মন্ত্রবলে ক্ষিতি করিবে বিজয় ! এই বন ত্যজি রাজা যাও অন্য বন । এক স্থানে বহু বধ হয় মৃগগণ ॥ বনে এক ঠাই বসি কোন কৰ্ম্ম নাই ; তীর্থ দরশন করি ভ্ৰম ঠাই ঠাই ॥ এত বলি একান্তে লইয়া মহামতি । যুধিষ্ঠিরে দেন বিদ্যা নাম প্রতিস্মৃক্তি ৷ মন্ত্ৰ দিয়া মুনিরাজ গেলেন স্বস্থান । মন্ত্র পেয়ে যুধিষ্ঠিরে হরিষ বিধান ৷ ব্যাস অনুমতি পেয়ে কুন্তীর নন্দন । দ্বৈতবন ত্যজিয়া গেলেন সেইক্ষণ ৷ উত্তর মুখেতে সরস্বতী তীরে তীরে । গিয়া উত্তরিলেন কাম্যক বনান্তরে । কতদিনে মুনিবাক্য করিয়া স্মরণ । নিকটে ডাকিয়া পার্থে বলেন বচন ॥ ভীষ্ম দ্রোণ তুরিশ্রব কৃপ কৰ্ণ দ্রোণি । সৰ্ব্বশাস্ত্রে বিশারদ জানহ আপনি ॥