পাতা:কাশীদাসী মহাভারত.djvu/৩৮৩

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


>Հ8 চৌদিকে সহস্ৰ দশ ক্রোশ পরিসর । স্বরাহুর ভুজঙ্গ নরের অগোচর ॥ রচিয়া বিচিত্র সভ দানব প্রধান । সবিনয়ে জানাইল কৃষ্ণ বিদ্যমান ॥ যুধিষ্ঠির কৃষ্ণ পার্থ প্রশংসে দানবে। দেখিতে গেলেন সভা মহা মহোৎসবে ॥ দ্বিজগণে পায়সান্ন করান ভোজন । নানা রত্ন দান দেন রজত কাঞ্চন ॥ করিলেন শুভক্ষণে প্রবেশ সভায় । পাণ্ডব সপরিবারে রহেন তথায় ॥ চিরদিন রহে কৃষ্ণ পাণ্ডবের প্রীতে । পিতৃ দরশনে যাব করিলেন চিতে ॥ পিতৃম্বস কুন্তীর বন্দিয়া দুই পাদ । আলিঙ্গিয়া ভোজহতে করেন প্রসাদ ॥ সুভদ্ৰা ভগিনী স্থানে করিয়া গমন । গদ গদ মৃত্যুবাক্য সজল নয়ন ॥ করেন রুক্মিণীকান্ত ভদ্র প্রবোধিয়া । স্নেহেতে চক্ষুর জল পড়িছে বহিয়া ॥ সেবিবা শাশুড়ী কুন্তীদেবীর চরণে । সমভাবে সৰ্ব্বদা বঞ্চিবা কৃষ্ণ সনে ॥ তত্ত্বকথা কহিয়া চলেন গদাধর । প্ৰণমিয়া ভদ্র দেবী কান্দে উচ্চৈঃস্বরে ॥ ভদ্র প্রবোধিয়া কৃষ্ণ গিয়া কৃষ্ণ পাশে । বিনয়ে কহেন তাকে মৃত্যু মৃদু ভাষে ॥ প্রাণের অধিক মম মুভদ্ৰো ভগিনী । সদাকাল স্নেহ তারে করিব। আপনি ॥ দ্রৌপদীরে সন্তাষিয়া গিয়া নারায়ণ । ধৌম্য পুরোহিত সহ করি সম্ভাষণ ॥ যুধিষ্ঠিরে কহেন করিয়া নমস্কার । আজ্ঞা কর গৃহে আমি যাব আপনার ॥ শুনিয়া ধৰ্ম্মের পুত্র বিষণ্ণ বদন । কৃষ্ণে আলিঙ্গন করি সজল নয়ন ॥ ভীমাৰ্জ্জুন সহিত হইল কোলাকুলি । কৃষ্ণে প্ৰণমিল মাদ্রৗপুত্র মহাবলী ॥. শুভতিথি নক্ষত্র গণক জানাইল । বেদ বিধি ব্রাহ্মণ মঙ্গল উচ্চারিল ॥ ব্ৰহ্মার ধ্যান—ব্রহ্মা কমণ্ডলুধরশ্চতুর্বজ্ঞশ্চতুৰ্ভুজঃ। [ মহাভারত। །---འདྲ༤ দারুক গরুড়ধ্বজ করিয়া সাজন । গোবিন্দের অগ্রে ল’য়ে দিল ততক্ষণ ॥ যাত্রা শুভ র্যার নাম করিলে স্মরণ । তিনি যাত্রা করিলেন করি শুভক্ষণ ॥ স্নেহেতে কৃষ্ণের সহ ধৰ্ম্মের নন্দন । খগপতি ধ্বজে আরোহনে ছয়জন ॥ রথ চালাইয়া দিল দারুক সারথি । যোজনান্তে গিয়া ধৰ্ম্মে বলেন শ্ৰীপতি ॥ নিবর্তহ মহারাজ যাও নিজালয় । আমাতে রাখিবে সদ সদয় হৃদয় ॥ আলিঙ্গন করি পার্থ সজল নয়ন । বহুকষ্টে নিবৃত্ত হইল পঞ্চজন ॥ বিরস বদনে ফিরিলেন পাঁচজন । গেলেন দ্বারকাপুরে দ্বারকারমণ ॥ তবে ময় বলে ধনঞ্জয় বিদ্যমান । মম মনোনীত সভা নহিল নিৰ্ম্মণি ॥ আজ্ঞা কর যাব আমি মৈনাক পৰ্ব্বতে । কৈলাস উত্তরে হিমালয় সন্নিহিতে ॥ বৃষপৰ্ব্বা নামে ছিল দানবের পতি । ত্রিলোক শাসিয়া তথা করিল বসতি ॥ করিলাম তার সভ: পূৰ্ব্বেতে নিৰ্ম্মাণ । নানা রত্ন মণিময় অাছে সেই স্থান ॥ এ তিন লোকেতে যত দিব্য রত্ব ছিল । নানা রত্বে নানা অস্ত্রে গৃহ পূর্ণ কৈল ॥ কৌমোদকী নামে গদা আছে গদাধর। সে গদার যোগ্য হয় বীর বৃকোদর ॥ তব হস্তে যেমন গাণ্ডীব ধনু সাজে । তেন গদাধর আছে বিন্দু সরোমাঝে ॥ বরুণে জিনিয়া বৃষপৰ্ব্ব দৈত্যেশ্বর । পাইয়াছে দেবদত্ত শঙ্খ মনোহর ॥ তার স্বর শুনি দৰ্প ত্যজে রিপুগণ । সে শঙ্খ তোমাকে হয় বিশেষ শোভন ॥ এই সব দ্রব্য আছে বিন্দু সরোবরে । অজ্ঞা কর আমি গিয়া আনিব সত্বরে ॥ আজ্ঞা পেয়ে চলিল দানবরাজ ময়ু । কৈলাসের উত্তরেতে হেমন্ত-তনয় ॥