পাতা:কাশীদাসী মহাভারত.djvu/৫০৩

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


উদ্যোগপৰ্ব্ব । ] হা দিয়া প্রবোধহ পাণ্ডু-পুত্ৰগণে । pই ভাই বিরোধ না হয় প্রয়োজনে ॥ চুয়ের এতেক বাক্য শুনি ছুৰ্য্যোধন । paক থাকিয় তবে বলিলা বচন ॥ kরুকে ভজিব আমি মনে নাছি লয় । k হাক সে হোক যুদ্ধ করিব নিশ্চয় ॥ নিলেন ভাষ্ম তবে যাহা ইচ্ছা কর । শুনিলে উপদেশ যুদ্ধানলে মর ॥ নন্তরে দ্রোণ কৃপ বাহলীক রাজন । ষ্টকেতু ধৃতরাষ্ট্র গুরুর নন্দন ॥ izর প্রভূতি আর যত মস্ত্রিগণ । একে দুৰ্য্যোধনে কহিল বচন ॥ স্ন যে কহিল। তাই কর মহারাজ । {ঙ্গ ভাই বিরোধে না হয় ভদ্রে কাজ ॥ ক্ষয়ু হুইবেক লোকে অপমান । তে পৌরুষ কিছু না হয় বিধান ॥ পিন পৈতৃক ভাগ যে হয় উচিত । |াহ দেহ পাণ্ডবেরে শাস্ত্রীয় বিহিত ॥ সত্য করিল তারা সভার গোচর । হতে হইল মুক্ত পঞ্চ সহোদর ॥ }ধ ধই অধিকার ছিল তা সবার। o: তুমি দেহ পুনর্ববার ॥ چa. করিলে অপমান না করিল মনে । কেহ হৈলে ন সহিত কদাচনে ॥ 3ಾ নরমধ্যে খ্যাত পঞ্চজন । ষ্টেকে জিনিবারে পারে ত্রিভুবন ॥ টর গোগ্রহে যুদ্ধ দেখিলে আপনে । *বর ধনঞ্জয় সবাকারে জিনে ॥ "টের গভিাগণ মুক্ত করি দিল । সি মজ্জন বীর কারে না মারিল ॥ মই আক্রোশ যদি থাকিত তাহার । । কেন সংগ্রামে করিল পরিহার ৪ তথ্য দেখ রাজা গন্ধৰ্ব্ব-প্রধান । " ধরিয়া নিয়া করিল প্রয়াণ । শ্বেতাশ্ববাহনং দৈত্যং রক্ত মাল্যামুলেপনং। 8న(t - মুখ্য মুখ্য যতেক ছিলেন সেনাপতি । ছাড়াইতে ন হইল কাহার শকতি ॥ তোমারে আক্রোশ যদি পাগুবের ছিল । তবে কেন পার্থ তোমা মুক্ত করি দিল ॥ যদি বল উত্তর গোগ্রহে ধনঞ্জয় । পরকার্য্যে অপমান করিল আমায় ॥ দ্ৰৌপদার বাক্য পার্থ নারে খণ্ডিবারে । এই হেতু গাভী মুক্ত করিল প্রকারে । ভাই ভাই যুদ্ধে কিছু নাহি অপমান । জয় পরাজয় মানি একই সমান ॥ কহিলে পরম শত্রু মোর পঞ্চজন । তাহারে ভজিলে হয় কুযশ ঘোষণ ॥ তুমি শক্রভাব কর তাহার না করে । জ্ঞাতি মধ্যে যে জন অধিক বল ধরে ॥ সে হয় প্রধান রাজ কহিনু নিশ্চয় । পুর্বের কাহিনী শুন কহি যে তোমায় ॥ ত্রেতাযুগে ছিল রাজা লঙ্কার ঈশ্বর । বাহুবলে জিনিল সকল চরাচর ॥ ক্ষত্রবংশে চূড়ামণি শ্রীরাম লক্ষণ। র্তাহাদের সহ দ্বন্দ্বে হইল নিধন ॥ মুখ্য মুখ্য যতেক আছিল সেনাগণ । শক্তি না হইল কার? করিতে মোচন ॥ অহিংসা পরমধৰ্ম্ম শাস্ত্রেতে বাখানে । হিংসা সম পাপ নাহি বলে জ্ঞানিজনে ॥ অগ্র হৈতে হিংসাবুদ্ধি যেই জন করে । পঞ্চ মহাপাপ আসি বেড়য়ে তাহারে ॥ জগতে অকাত্তি ঘোষে লোকে নাহি মানে । কহিব পূর্বেবর কথা শুন সাবধানে ॥ মহাভারতের কথা অমৃত-সমান । কাশীরাম দাস কহে শুনে পুণ্যবান ॥ _ ইজের জন্ম, ৩ৎকর্তৃক গুরুপা হরণ ও গৌতমের অভিশাপ । অদিতি দক্ষের কন্যা কশ্যপ-গৃহিণী । পুত্ৰবাঞ্ছা করিয়া ভজিল শূলপাণি ॥