পাতা:কাশীদাসী মহাভারত.djvu/৫০৭

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


উদ্যোগপৰ্ব্ব । ] পুষ্পমালাধরং কান্তং দিব্যগন্ধানুলেপনহা 8సాహి করা বস্ত্ৰ অলঙ্কার ধন বহুতর । সুরকার দিয়া তোষ পঞ্চ সহোদর। দেষ্ট ইন্দ্রপ্রস্ত পুনঃ দেহ অধিকার । কg রত্ব ছিল তার যতেক ভাণ্ডার ॥ " নেই সত্য করিলেক তাহে হৈল পার । লাচিত ভাগ দেহ উচিত তাহার ॥ হলেতে অশক্ত নহে ভাই পঞ্চজন । মুহূর্ডেকে জিনিবারে পারে ত্রিভুবন ॥ অতএব দ্বন্দ্ব কিছু নাহি প্রয়োজন । বৰ্দ্ধ রাজ্য দিয়া তোষ পাণ্ডু-পুত্ৰগণ । ইদু বলিলেন ভাল নিল মম মনে । উপযুক্ত যুক্তি বটে কর এইক্ষণে ॥ বিরোধ হইলে রাজা হবে কোন কাজ । সমুচিত ভাগ তারে দেহ মহারাজ । ন দিলে নিশ্চয় রাজা হবে কুলক্ষয় । অতএব সাবধানে শুন মহাশয় ॥ প্রিয়ম্বদ দূত রাণ্ড দেহ পঠাইয়া । প গুলোর হেথা আন বিনয় করিয়া । তবে সে তোমার হিত হইবে রাজন । সীমারে এতেক কহ কোন প্রয়োজন ॥ করবের পতি তুমি কৌরবের গতি । .গম বিন কুরুকুলে নাহি অব্যাহতি ॥ তুমি যে কহিবে তাহ কে করিবে আন । ঘই চিত্তে লয় তাহ করহ বিধান ॥ । ভয়ের এতেক বাক্য শুনি সভ্যগণ । সাধু সাধু বলি প্রশংসিল জনে জন ॥ :ত্রণ কৃপ বিস্তুরাদি বহল:ক নৃপতি । পণ্ডিবে আনিতে সবে দিল অনুমতি ॥ পুনঃ পুনঃ নানামতে ক’হল অস্কেরে । প"প্রাতে আনহ রাজা পঞ্চ সহোদরে ॥ সমুচিত ভাগ তারে দেহ রাজধানী । এই কৰ্ম্ম তব প্রিয় শুন নৃপমণি ॥ এইরূপে কহিল সকল সভাজন । মনে মনে ক্রোধে জ্বল রাজ দুর্য্যোধন ॥ পণ্ডিবের প্রশংসা কর্ণেতে লাগে শাল । জেণধভরে হেটমাথ কুরু মহীপাল ॥ | তবে দুর্য্যোধনে কহে অন্ধ নরপতি । আমার বচন স্থত কর অবগতি ॥ ! সবার সম্মান রাখ শুন মম বাণী । পাণ্ডবেরে সমুচিত দেহ রাজধানী ॥ ভাই ভাই সংগ্রীতে করহ রাজাসুখ । কলহেতে কাৰ্য্য নাহি জন্মে মহাদুঃখ ॥ লোকেতে কুযশ ঘোষে অপকীৰ্ত্তি হয় । পূর্বের কাহিনী শুন কহি যে তোমায় ॥ মহাভারতের কথা অমৃত-সমান । ! কাশীরাম দাস কহে শুনে পুণ্যবান ॥ বুক রাজার উপাখ্যান । সূর্যবংশে বৃক নামে ছিল নরপতি । মহাধৰ্ম্মশীল রাজা জগতে স্থখ্যাতি ॥ সুমতি কুমতি তার যুগল বনিতা । কোশলনন্দিনী দোহে শত পতিব্ৰতা ৷ যুবাকাল গেল তবু পুত্ৰ ন হইল । পুত্রবাঞ্ছা করি দোহে স্বামীরে কহিল ॥ কত দিনা স্তরে বিভাণ্ড ক তপোধন । অযোধ্যায় করিলেন শুভ আগমন ॥ ভাৰ্য্যা সহ নরপতি ছিল আন্তঃপুরে । তথ। গিয়া উত্তরিল কে নিবাfরবে তারে ॥ জিতেন্দ্রিয় তেজোময় দেখি তপোধন । ভাৰ্য্য৷ সহ নরপতি করিল বন্দন ॥ রাণী সহ করঘুড়ি মুনি অগ্ৰে স্থিত । বিভাণ্ড ক জিজ্ঞাপেন কিব, চাহ হিত ॥ মহাধৰ্ম্মশীল তুমি নৃপতি প্রধান । তোমা সম সংলগ্নরে: ত নাহি ভাগ্যবান ॥ রূপে কামদেব জিনি শীলতায় হন্দু। তেজে দিনকর তুমি গুণে গুণসিন্ধু ॥ কাৰ্ত্তবীৰ্য্য প্রতাপে সামর্থে হনুমান । কাত্তিতে গণি যে পৃথু রাজার সমান ॥ সেনাপতি মধ্যে গণি যেন ষড়ানন । সর্ববজ্ঞ শ্রেণীতে যেন জীবের নন্দন ॥ কেন দেখি চিন্তামগ্ন উদ্বিগ্ন •োমারে । ইহার বৃত্তান্ত রাজা কহিবে আমারে ॥