পাতা:কাশীদাসী মহাভারত.djvu/৫২০

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


('>* বিরাট নগর মধ্যে পাণ্ডুর কুমার । সভামধ্যে অবস্থিতি দেব অবতার ॥ হেনকালে সঞ্জয় হইয়া উপনীত । দেখিয়া বিরাট ভরে জিজ্ঞাসিল হিত ॥ দিব্য রত্ন-সিংহাসন দিলেন বসতি । পাণ্ডবে সম্ভাষি দূত বসিল সভাতে ॥ কহিল সঞ্জয় প্রতি ভাই পঞ্চজন । সমস্ত কুশলবার্তা কহ বিবরণ ॥ ধৃতরাষ্ট্র দ্রোণ ভীষ্ম বাহলীক নৃপতি । আমাদের মাত কুন্তী গান্ধারী প্রভৃতি ॥ ত্রয়োদশ বর্ষ গত নাহি দরশন । কেবা জিয়ে কেবা মরে না জানি কারণ ॥ কোথা হৈতে এখানে তোমার আগমন । জ্যেষ্ঠতাত পাঠাইল এই লয় মন ॥ কি কহিয়া পাঠাইল অম্বিকানন্দন । ভীষ্ম (দ্রাণ কৃপ আর যত সভাজন ॥ কি কহিল কর্ণ বীর রাধার কুমার। দুৰ্য্যোধন কি বলে শকুনি দুরাচার ॥ উভয় কুলের হিত সবে কি চিন্তিল । সম্প্রীত করিতে বুঝি তোমা পাঠাইল ॥ যেই স e্য করিলাম সবার অগ্ৰেতে । তাহাতে হইনু মুক্ত ধৰ্ম্মের কৃপাতে ॥ সৰ্ব্বধৰ্ম্ম মুল হরি ব্রহ্ম সনাতন । তাহার কৃপায় হৈল সঙ্কটে তারণ ॥ এত দুঃখ পেয়ে তবু রাখিলাম ধৰ্ম্ম ॥ সবে মুখে আছেন সবার মূল কৰ্ম্ম ॥ সমুচিত ভাগ যেহ হয়ত আমার । তাহা ছাtড় দিতে করিয়াছে কি বিচার ॥ কহ শুনি সঞ্জয় সমস্ত বিবরণ । এত শুনি সঞ্জয় করিল নিবেদন ॥ ভষ্ম দ্রোণ কৃপ আর বাহলীক নৃপতি । সম্প্রাত করিতে সবে দিল অনুমতি ॥ কার’ বাক্য না শুনিল কৌরব দুৰ্ম্মতি । সান্ত-। করিল। কত অন্ধ নরপতি । ভীষ্ম-পে শুনি তোম। সবার উদয় । আনন্দিত সকলের হইল হৃদয় ॥ ধ্যায়েৎ স্বদৈত্যং মধুভাঙ্গরাখ্যং ॥ [ মহাভারত । চারিজাতি নগরে যতেক প্রজাগণ । শুনিয়া সকল বার্তা হৃষ্ট সৰ্ব্বজন ॥ মৃতদেহে যেন জীবে পাইল জীবন। তোমাদের সংবাদে তেমনি প্রজাগণ । স্থছদ অমাত্য জ্ঞাতি যত বন্ধুজন। সদা হাহাকার শব্দে করিল রোদন ॥ ! ডাকিত পাণ্ডব বলি সদা উৰ্দ্ধমুখে । তোমাদিগে না দেখিয়া দগ্ধ ছিল দুঃখে । আত্মার বিহনে যেন না রহে জীবন । | তোমাদের বিহনে তেমনি সৰ্ব্বজন ॥ দ্বাদশ বৎসরাবধি যত প্রজাগণ । সুখলেশ নাহি কণর জীয়ন্তে মরণ ॥ এবে সমাচার শুনি তোমা সবাকার । দেখিতে উদ্বেগ চিত্ত আনন্দ অপার । তোম পঞ্চভাই যবে গেলে বনবাসে। বিনা মেঘে নগরেতে রুধির বরিষে। দিবসে ডাকয়ে শিবা অতি কুলক্ষণ । উল্কাপাত কি নির্ঘাত শব্দ ঘনে ঘন ॥ সেইক্ষণে ধূমকেতু প্রকাশে আকাশে। অশ্ব হস্তী পশুগণ কান্দে চারি পাশে ॥ অলক্ষণ দেখিয়া বলিল জ্ঞাতিগণ । কুলক্ষয় হৈল রাজা তোমার কারণ । অতি কুলক্ষণ রাজা দেখি শাস্ত্রমতে । এখন উপায় কর যদি লয় চিতে ॥ দিনে দিনে অলক্ষণ দেখ মহাবল । পৃথিবী হরিল শস্ত মেঘে অল্প জল ৷ সে কারণে নরপতি মম বাক্য ধর । আপন কুলের হিত যদি বাঞ্ছা কর । ফিরাইয়া আন পঞ্চ পাণ্ডুর কুমার । সেই ইন্দ্রপ্রস্থে পুনঃ দেহ অধিকার । পুত্রবশে ধৃতরাষ্ট্র শুনি না শুনিল । সেই কাল আসি উপস্থিত যে হইল । অনন্তর উত্তর গোগ্রহে কুরুগণে । পরাজয় করিলেন ধনঞ্জয় রণে ॥ দণ্ডভয় হইয়। আইল কুরুপতি । ভীষ্ম দ্ৰোণ ধৃতরাষ্ট্র বুঝাইল নীতি | | | | | i