পাতা:কাশীদাসী মহাভারত.djvu/৫৫০

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


& 88 চর আসি ফুৰ্য্যোধনে করে নিবেদন । কুরুক্ষেত্রে সাজি আসে পাণ্ডুপুত্ৰগণ ॥ শুনিয়া নৃপতি আজ্ঞা দিল দুঃশাসনে । শীঘ্ৰগতি ডাকি আন যত সভাজনে ॥ রণসজ্জা কর আসিয়াছে শক্রগণ । শুভযাত্রা দেখি সৈন্য করহ গমন ॥ পাইয়া রাজার আজ্ঞা বীর দুঃশাসন । দৈবজ্ঞ আনিয়া দিন করিল গণন ॥ রাজারে কহিল তবে বীর দুঃশাসন । তৃতীয় প্রহরে যাত্র দিন শুভক্ষণ ॥ সাজিবারে আজ্ঞা দিল যত সৈন্যগণ । জয় শব্দ করে যত সৈন্য হৃষ্টমন ॥ অসংখ্য সাজিল রথী লিখিতে না পারি। অৰ্ব্বদ অর্বুদ যত সাজিল দুধারি ॥ গজ বাঞ্জী পত্তি সাজে ব্লথ অগণন । সমুদ্র সমান সৈন্য সাজে কুরুগণ ॥ ধ্বজ ছত্র পতাকায় ঢাকিল আকাশ । বাস্তুকি সৈন্যের ভরে পায় বড় ত্ৰাস ॥ টলমল করে পৃথ্বী যায় রসাতলে । প্রলয় কালেতে যেন সমুদ্র উথলে ॥ একাদশ অক্ষৌহিণী করিল সাজন । পঞ্চ শত ক্রোশ যুড়ি রহে সৈন্যগণ ॥ তবে দুর্য্যোধন রাজা আনি সভাজনে । ভীষ্ম দ্রোণ কৃপ কৰ্ণ পৃষতনন্দনে ॥ জয়দ্ৰথ সোমদত্ত ভগদত্ত বীর } পঞ্চ ভাই ত্রিগর্ত সহিত নৃপতির ॥ । শল্য মদ্রেশ্বর আর স্বশৰ্ম্ম নৃপতি। সবারে বিনয় করি কহে নরপতি ॥ ক্ষত্রমধ্যে পরাপর নাহি শাস্ত্ৰনীত । যুদ্ধেতে উপেক্ষ করা না হয় উচিত ॥ পিতা পুত্রে যুদ্ধ হলে না করি উপেক্ষা । সে কারণে না করিবে কাহারে প্রতীক্ষা ॥ প্রাণ উপেক্ষিয় সবে করিবে সমর। নিকটে সাজিয়া এল পাণ্ডব কোঙর ॥ , শুনি অঙ্গীকার কৈল যত বীরগণ । হইল আনন্দচিত্ত রাজা দুর্য্যোধন ॥ চলতুরগগতা যক্ষিণী দীর্ঘবক্ত। [ মহাভারত। তবে শত ভাই সঙ্গে গান্ধারীনন্দন। __ যাত্রা করি সজ্জীভুত হৈল সেইক্ষণ । বিদায় হইতে গেল বাপের সদন । নমস্কার করি কছে ভাই শত জন ॥ প্রসন্ন হইয়৷ তাত করহ জদেশ । শুভযাত্রা আজি যাব কুরুক্ষেত্র দেশ । নিকটে আসিয়া সবে হৈল উপনীত । যুদ্ধ করিবারে তব হয় ত উচিত ॥ তোমার প্রসাদে তাত হবে রিপুক্ষয় । যুদ্ধ করিবারে আজ্ঞা দেহ মহাশয় ॥ শুনিয়া হইল অন্ধ ক্রোধিত অন্তর । মনে মনে অনুশোচ করিল বিস্তর ॥ আশীৰ্ব্বাদ দিল, হেঁট করিয়া বদন । মায়ের নিকটে তবে গেল দুৰ্য্যোধন ॥ শত ভাই কহে কথা করিয়া মিনতি ॥ " প্রসন্ন৷ হইয়া মাত৷ দেহ ত আরতি ॥ শুনিয়া স্বলম্বত সজল-লোচন । আশ্বাসিয়া পুত্ৰগণে বলিল বচন ॥ ইতর তোমার রিপু নহে পাণ্ডুস্থত । একৈক পাণ্ডব জিনিবে পুরস্তুত ॥ | দেবের অজেয় রিপু বিখ্যাত ভুবনে । জীয়ন্তে পাণ্ডবে কেহ না পাপ্লিবে রণে ॥ সে কারণে তাহ সহ কলহ না রুচে । মোর বাক্যে প্রীতি কর যদি মনে ইচ্ছে । শুনিয়া কহিল নাস্তি রাজা দুৰ্য্যোধন। হেন বাক্য মাতা নাহি বলিও কখন ॥ কর্ণ মোর পক্ষ আর নেদ্রাণ মহাশয় । পিতামহ ভীষ্মবীর সংগ্রামে দুর্জয় ॥ অশ্বথাম কৃতবৰ্ম্ম কৃপ মহাবীর । শল্য মদ্ৰেশ্বর রাজ সংগ্রামে স্বধীর । লক্ষ লক্ষ বীরগণ আমার সহায় । পাণ্ডুপুত্রে সমরেতে মারিব হেলায় ॥ পাওবের পরাজয় মোর হবে জয় । নাহিক সংশয় ইথে কহিনু নিশ্চয় ॥ আশীৰ্ব্বাদ কর মাতা বিলম্ব না সয় ॥ ক্ষণ বহি যায়ু মাত করহ বিদায় ৷