পাতা:কাশীদাসী মহাভারত.djvu/৫৮

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


        বন্দে মহাপুরুষ তে চরণার বিন্দং।
 ব্রম্ভঘাতী মহাপাপী এই দুরাচার।
 দেখিলে হইবে পাপ বদন ইহার।।
 যতদূর পর্য্যন্ত ইহার অধিকার।
 ততদূর দ্বিজের বসতি নহে আর।
 অশ্বমেধ যজ্ঞ নাম করিয়া আনিল।
 ব্রম্ভণের মাংস খায় এবে জানা গেল।।
 দাও ফেলি এর দ্রব্য যে আছ যথায়।
 এত বলি সভা ছাড়ি দ্বিজগণ যায়।।
 ব্রম্ভণঘাতীর মুখ দেখা অনুচিত।
 রাজাগণ যথা তথা গেল চতুর্ভিত।।
 দ্বিজ ক্ষত্র বৈশ্য শুদ্র ছিল যত জন।
 সবে গেল একা মাত্র রহিল রাজন্।।
 মহাভারতের কথা অমৃতের ধার।
 কাশীরাম দাস কহে তরিবে সংসার।।
        -------
  জনমেজয়কে ভারত শ্রবণে ব্যাসের উপদেশ।
 
   অন্তর্য্যামী সর্ব্বজ্ঞ শ্রীপরাশর মুনি।
 বর্ণনা না যায় যিনি অপ্রতিম গুণী।।
 সত্যবতী হৃদয়ানন্দন মুনি ব্যাস।
 যাঁর মুখচন্দ্রে তিন ভূবন প্রকাশ।।
 কনক-পিঙ্গল-জটা-বিরাজিত শির।
 কৃষ্ণঅঙ্গ শোভে যেন তরিতে মুনির।।
 অম্বর সম্বরি যে ভারত রাখি কাঁখে।
 দক্ষিণ বামাতে পাছে মুনি লাখে লাখে।।
 জানিয়া রাজার কষ্ট সদয় হৃদয়।
 উপনীত সেখানে যেখানে জনমেজয়।।
 অধোমুখে আছে রাজা হয়ে শোকাবেশ।
 ব্যাস দেখি লজ্জাবন হইল বিশেষ।।
 মুনি বলে অভিমান ত্যজ নরপতি।
 বাক্য না শুনিয়া তব হইলে গতি।।
 ব্যাসের বচনে রাজা পাইয়া আশ্বাস।
 চরণে পড়িয়া কহে গদগদ ভাষ।।
 নিন্দিত আমার মত নাহি এ সংসারে।
 তোমার বচন নাহি শুনি অহঙ্কারে।।
 তার সমুচিত ফল শীঘ্র পাইলাম।
 দুস্তর নরকসিন্ধু মধ্যে পড়িলাম্।।
 কৃপা করি মুনিরাজ পড়িনু চরণে।
 তোমাবিনা তারে মোরে নাহি অন্যজনে।।
 ত্যাজিল আমারে ভ্রাতা মন্ত্রী যত জন।
 ত্যাজিল যতেক দ্বিজ পুরোহিতগণ।।
 পাপী ব'লে কেহ মোর নিকটে না আসে।
 আপনি আইলা কৃপা করি স্নেহবশে।।
 আজ্ঞা কর মুনিরাজ কি করি এখন।
 পাপসিন্ধু হৈতে মোরে করহ তারণ।।
 মুনি বলে চিত্তে দুঃখ না ভাবিও আর।
 হইবে নিষ্পাপ ধর বচন আমার।।
 ব্রম্ভবধ আদি পাপ সব হবে ক্ষয়।
 অশ্বমেধ ফল পাবে নাহিক সংশয়।।
 এক লক্ষ শ্লোক মহাভারত কাহিনী।
 শুচি হ'য়ে একমনে শুন নৃপমণি।। 
 পাপ তাপ খণ্ডিবে নাহিক সংশয়।
 আমার বচনে যদি করহ প্রত্যয়।।
 কৃষ্ণবর্ণ চন্দ্রাতপ বান্ধহ উপর।
 তার তলে ভরত শুনহ নৃপবর।।
 মহাভারতের কথা কীর্ত্তন করিতে।
 কৃষ্ণবর্ণ ত্যাজি শুক্ল হইবে নিশ্চিতে।।
 মহাপূণ্য যত কথা সর্ব্বশাস্ত্র সার।
 করহ শ্রবণ মুক্ত হবে নরবর।।
 এত শুনি জনমেজয় আনন্দ-হৃদয়।
 ধরিল মুনির পায় করিয়া বিনয়।।
 কৃপা করি যদি মোরে কহ এইমত।
 আপনি শুনাও মোরে শ্রীমহাভারত।।
 মুনি বলে ভারতের কথন বিস্তার।
 কহিবারে অবসর নাহিক আমার।।
 মুনিশ্রেষ্ঠ শিষ্যশ্রেষ্ঠ এই তপোধন।
 ভারতে আমার সম শ্রীবৈশম্পায়ন।।
 ইনি শুনাইবেন মহাভারত আখ্যান।
 যে আজ্ঞা বলিয়া রাজা করেন সম্মান।।
 এত বলি মুনিরাজ গেলা নিজ স্থান।
 শ্রীবৈশম্পায়নে বলে বর্নিতে পুরাণ।।