পাতা:কাশীদাসী মহাভারত.djvu/৬৩৮

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


VJDo দেবীগলোচ্ছল দত্ত ধারা পানাং প্রকুৰ্ব্বতীং ॥ [ মহাভারত । শ্ৰীকৃষ্ণ বলেন সখে নাহি কিছু ভয় । প্রতিজ্ঞা পূরণ তব হইবে নিশ্চয় ॥ এতেক কহিতে তথা কুরুবীরগণে । অস্ত্র ধনু ত্যাগ করি আইল সেখানে ॥ এখনি মরিবে পার্থ হেন করি মনে । আনন্দিত দুৰ্য্যোধন সহাস্য বদনে ॥ তবে জয়দ্ৰথ দেখি সন্ধ্যার সময় । শীঘ্ৰগতি আসিয়া অৰ্জ্জুন প্রতি কয় ॥ জয়দ্ৰথ বলে শুন বীর ধনঞ্জয় । কি দেখ, হইল আসি সন্ধ্যার সময় ৷ আপন প্রতিজ্ঞা পূর্ণ করহ এখন । তব ঘশ ঘুষিবেক এ তিন ভুবন ॥ অস্ত্র ধনু ত্যাগ করি যাহ ধনুৰ্দ্ধর । শীঘ্ৰগতি প্রবেশই মগ্নির ভিতর ॥ মিছা মায় মিছা কায় জলবিম্ববত । এ মহীমণ্ডল যাবে পড়িবে পৰ্ব্বত | যদি রিপু জিনি রাজ্য কর মহাশয় । চিন্তিয়া দেখহ তাহা চিরকাল নয় ॥ অধৰ্ম্ম করিয়া কৰ্ম্ম যে করে সাধন | অতি শীঘ্ৰ হয় তার সবংশে পতন ॥ ধাৰ্ম্মিক বলিয়া তোমা বলে সৰ্ব্বজনে । করিলে প্রতিজ্ঞ তাহা লঙ্ঘিবে কেমনে ॥ অর্জন উত্তর দেন শুন জয়দ্ৰথ । তুমি যে কহিলে কথা রাখি ধৰ্ম্মপথ ॥ ধৰ্ম্মেতে বিচার করি ধাৰ্ম্মিকের সনে । অধৰ্ম্মে জিনিতে দোষ নাহি দুষ্টজনে ॥ অন্যায় সমর করি শিশু কৈলে হত । কহ দেখি সে কৰ্ম্ম কেমন ধৰ্ম্মমত ॥ এখনি বধিয়া তোম। আমিও মরিব । পাইয়া পরম শত্ৰু ছাড়িয়া না দিব । শুনিয়া শুকায় মুর্থ জয়দ্ৰথ বীরে । ভয় নাই আশ্বাসি কহেন পার্থ তীরে ॥ বিশ্বাসঘাতক তব রাজী সম নহি । কি করিব নিজ কৰ্ম্ম ল’ব ধৰ্ম্ম বহি ॥ শরীর ছাড়িব সত্য করিয়াছি পণ । , এত বলি আনিয়া জ্বলিল হুতাশন ॥ -ms কৃষ্ণ সাজায়েন কাষ্ঠ দিয়া গন্ধপারে। সৌরভ সহিত গন্ধ উঠিল সত্বরে ॥ শ্ৰীকৃষ্ণ বলেন শুন বীর ধনঞ্জয় । বীজ্ঞকৰ্ম্ম করিয়া বধিলা ক্ষত্ৰচয় । এখন নিরস্ত্ৰ হ’য়ে.মরিবে কেমনে । অস্ত্র সহ প্রবেশহ জ্বলন্ত দহনে ॥ কৃষ্ণবাক্য অভিপ্রায় বুঝিয়া অৰ্জ্জুন । নিলেন গাণ্ডীব ধনু করিয়া সগুণ ॥ সাতবার প্রদক্ষিণ করি হুতাশন । প্রসন্ন কৃষ্ণের মুখ চান ঘনে ঘন ॥ দুৰ্য্যোধন রাজার হৃদয়ে বড় স্থখ । মরিল প্রধান রিপু নাহি আর দুঃখ ॥ হাস্যমুখে কহে আগে চাহিয়া অৰ্জ্জুনে ; বিলম্বে বাড়িবে মায়া পুড়িতে আগুন ; টান দিয়া ফেলাহ করের শরচাপ । চক্ষু বুজি দেহ শীঘ্ৰ হুতাশনে বাপ । অৰ্জ্জুন বলেন এই বাঁপ দিয়া পড়ি । জয়দ্ৰথ ল’য়ে তুমি স্থখে যাহ বাড়ী ৷ জয়দ্ৰথে দেখি কৃষ্ণ আনন্দিত মন । সেইক্ষণে ছাড়িলেন সূৰ্য্য আচ্ছাদন ॥ চারিদণ্ড বেল আছে গগনমণ্ডলে । দেখিয়া হইল ত্রাস কৌরবের দলে । কৌরব জানিল তবে নিতান্ত কপট । বিষম কৃষ্ণের মায়! বুঝিতে সঙ্কট । শ্ৰীকৃষ্ণ বলেন সখে শুন সাবধানে । জয়দ্ৰথ বধিতে বিলম্ব আর কেনে ॥ কাটহ উহার মুণ্ড ভুমে না পাড়িব । পশ্চাৎ সে সব কথা জানিতে পারিব{ l; উহার জনৰ তপ কাম্যবনে করে । ফেলাইবা মুণ্ড তার হাতের উপরে ॥ বাণে বাণে মৃণ্ড ল’য়ে ফেল তার হাতে । তবে সে হুইবে রক্ষা জানিও ইহাতে ॥ এত শুনি ধনঞ্জয় পুরিয়া সন্ধান । জয়দ্ৰথ ললাটে মারেন এক বাণ ॥ শীঘ্ৰগতি মুণ্ড কাটি আর এক বাণে । বাণে বাণে লয় তার জনকের স্থানে ॥