পাতা:কাশীদাসী মহাভারত.djvu/৬৭৪

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


ఆN98 লোহিত্য জিতাসিন্দুরজবাদাড়িমরূপিণীং । হেনমতে যুধিষ্ঠিৱ বলেন বচন । শুনিয়া অৰ্জুন বীর কহিছে তখন ॥ কি কারণে চিন্তা তুমি কর মহাশয় । কেবল ভরসা কৃষ্ণ সংগ্রামের জয় ॥ এই মত সৰ্ব্বজন রজনী বঞ্চিয়া । সৈন্য সমাবেশ করে প্রভাতে উঠিয়া ॥ যুধিষ্ঠির আজ্ঞা করিলেন যোদ্ধাগণে । বাজায় বিবিধ বাদ্য না যায় লিখনে ৷ জুই দলে মিশামিশি হৈল মহারোল । প্রলয়কালেতে যেন সমুদ্র-কল্লোল ৷ করিল বিচিত্র ব্যুহ শল্য মহারাজ। ভূজঙ্গম ব্যুহ কৈল পাণ্ডব-সমাজ । শল্যের সহিত পাণ্ডবদের যুদ্ধ। ধৃতরাষ্ট্র বলে কহ সঞ্জয় বিশেষ । উভয় দলেতে সৈন্য কিবা আছে শেষ । শল্য দুৰ্য্যোধন তবে কি কৰ্ম্ম করিল। আপন বুদ্ধিতে পুত্র সব বিনাশিল ॥ ভীষ্ম দোণ কৰ্ণ আদি যে নাশিল রণে । হেন জন সঙ্গে যুদ্ধ করে কি কারণে ॥ সঞ্জয় বলেন রাজা ইথে দেহ মন । আত্মশেষ সৈন্য ল'য়ে যুঝে দুৰ্য্যোধন ॥ একাদশ সহস্ৰ অযুত আছে রথ । তিন কোটি মক্ত হস্তী সমান পৰ্ব্বত ॥ দুই পদ্ম অশ্ব আছে রণে অনিবার । পবন গমন জিনি গমন যাহার ॥ তিনকোটী পদাতিক আছে মম সম । সৈন্যের সছিত যুঝে করিয়া বিক্রম । পাণ্ডবের শেষ সেনা আছে মহামতি । আছয়ে গণনে রাজা সহস্ৰেক হাতী ॥ অশ্ব জাছে এক লক্ষ, লক্ষ পদাতিক । মুন নহে ইহা হৈতে বরঞ্চ অধিক ॥ যুধিষ্ঠির যোদ্ধাপতি পাণ্ডব বাহিনী । ছুই দলে মহাযুদ্ধ শুন নৃপমণি ॥ যুধিষ্ঠির পরাক্রমে সৈন্য ভঙ্গিয়ান । দেখিয়া শল্য ভূপতি হৈল আগুয়ান ॥ [ মহাভারত। দিব্যরথে সাজিয়া আইল সেইক্ষণে T শল্য বলে সেনাগণ যুঝ একমনে ॥ নকুলের যুদ্ধ কর্ণপুত্র চিত্রসেনে । কাটিল নকুল ধনু চিত্ৰসেন বাণে ॥ সারথি কাটিয়া রথ করিল বিরধী । বাণে বিদ্ধ হ’য়ে চিন্তে নকুল স্বমতি ॥ তবে খড়গ চৰ্ম্ম হস্তে তার রথে চড়ি । চিত্ৰসেন কবচ ধরি মুণ্ড কাটি পাড় । নকুলের পরাক্রমে ধন্য ধন্য ধ্বনি । সত্যুষেণ মুষেণ আইল বরমণি ॥ নকুল্ল সহিত যুদ্ধ করে বীরগণ । দুই বীরে মহাযুদ্ধ সংগ্রাম শোভন ॥ সত্যসেন শক্তি মারে সহিল নকুল । নিজ শক্তি মারি তারে করিল আকুল। সত্যসেন পড়িল সুষেণ যুঝে বেগে । নকুলের অশ্বরথ কাটি পাড়ে আগে ॥ বিরর্থী হইয়া তবে মাদ্রীর নন্দন । শীঘ্ৰগতি আর রথে কৈল আরোহণ ॥ সন্ধানেতে কাটিলেন স্বষেণের শির। সিংহনাদ করি উঠে নকুল প্রবীর ॥ শুন মহারাজ তব বাহিনী সকল । দলিয়া চলিল সবে পণ্ডিবের দল ৷ দেখি শল্য আগু হৈল ধরিয়া ধনুক । পরাক্রম দেখি কেহ না রহে সম্মুখ ॥ যুধিষ্ঠির রাঙ্গ সহ হইল মিলন । দোহে দোহা প্রতি করে বাণ বরিষণ ॥ যুঝিল নকুল ভৗম রাজার পশ্চাতে । যোদ্ধাগণ আগে যুঝে রথীর সনেতে ॥ কৃপাচাৰ্য্য কৃতবৰ্ম্ম আদি মহাবীর । শল্যের নিকটে যুঝে হইয়া অস্থিরগদাহাতে ভীমসেন হন আগুসার । মহাকোপে যায় যেন অগ্নি অবতার ॥ নিবারিতে নারে শল্য ভীম গদাঘাতে । রথেতে সারথি ভীম মারে এক ঘাতে । লাফ দিয়া শল্যবীর চড়ে আর রথে । অটল পৰ্ব্বত প্রায় আছে গদা হাতে s