পাতা:কাশীদাসী মহাভারত.djvu/৮০১

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


! J . --سیعے তার মাঝে খড়গ এক খোবে নরপতি। কদাচিত অস্ক মত না করিবে তথি । মদন আবেশে যদি মজে তার মন । সেই খড়েগ কাটিয়া ফেলিবে সেইক্ষণ । সেই ব্রত কর রাজা আমার বচনে । তোমা বিনা করিতে নারিবে অন্যজনে ॥ শুনিয়া কছেন রাজা ধৰ্ম্মের নন্দন । জাচরিতে ন পারিল সহস্ৰলোচন ॥ হেন ব্রত আচরিব আমি কোন মতে । শুন মহামুনি বড় ভয় পাই চিতে । ৰঞ্জল কন তোমার সহায় নারায়ণ । তোমার অসাধ্য ইহা নহুেত রাজন ॥ এত বলি ব্যাস চলিলেন নিকেতনে । কৃষ্ণেরে করেন স্তব রাজ দৃঢ়মনে ॥ মহাভারতের কথা অমৃত সমান । কাশীরাম দাস কহে শুনে পুণ্যবান ॥ serence=جست= অশ্ব জানিতে ভীম, বৃষকেতু ও মেঘবর্ণের যাত্রা । জন্মেজয় কহিলেন কহ মহামুনি । অপূর্ব প্রস্তাব আমি তোমা হৈতে শুনি ॥ কেমনে আনিল অশ্ব বীর বৃকোদর। বিবরিয়৷ সেই কথা বল মুনবির ॥ বলেন বৈশম্পায়ন শুন জন্মেজয় । ভীম আনিবারে গেল পাণ্ডবের হয় ॥ বৃষকেতু মেঘবর্ণ করিয়া সংহতি । গোবৰ্দ্ধন গিরিবরে গেল শীঘ্ৰগতি ॥ পৰ্ব্বতে বসিয়া বীর হরষিত হৈয়া । দেখিল রাজার পুরী দুরেতে থাকিয় ॥ হবর্ণরচিত পুরী মণি মুক্তময় । পুরী দরশনে ভীম মানিল বিস্ময় ॥ রক্ষক সকলে দেখি নানা অস্ত্র হাতে । অগম্য রাজার পুরী যাইব কিমতে ॥ ভীমের বচন শুনি কর্ণের নন্দন । যোড়হাতে ভীমেরে করেন নিবেদন । । রাজাবাত্নী মনোহর অতি অনুপম । च्षभब्र नर्णब्र छिनि शृब्रौन्न इ*ांम ॥ जन थञाबिंधक्क्कनूबीजबाखळ्ख्षाग ৭৯১T | প্রবেশিতে না পারিব যুবনাশ্বপুরে । " আসিবে যজ্ঞের ঘোড়া এই সরোবরে । আসিবে অনেক সৈন্য ঘোড়ার সংহতি । | ধরিয়া লইব ঘোড়া করিয়া শকতি ॥ ! বৃষকেতু বলে আমি করিব সমর। আমা নিবারিতে নাহি হেন আছে নর ॥ . তবে মেঘবর্ণ বলে শুন পিতামহ । ধরিয়া আনিব ঘোড়া যদি আজ্ঞা দেহ ॥ অশ্ব ল’য়ে থাকিব যে পৰ্ব্বত উপরে । তোমরা প্রবৃত্ত দোহে হইবে সমরে ॥ মেঘবর্ণ বাক্য শুনি ভীম হৈল গ্ৰীত । পর্বতে রহিল সে হইয়৷ হরষিত s রাজার গমনে যেন বাজে বাদ্যচয় । শুন খুড়া জলপানে আসে সেই হয় ॥ অশ্ব দেখি ভীমবীর আনন্দিত মনে । , ঘটোৎকচ হতে আজ্ঞা দিল সেইক্ষণে ॥ মেঘবর্ণ বলে তুমি দেখ না বসিয়া । সৈন্যের মাঝারে ঘোড়া আনিব ধরিয়া ॥ মহাভারতের কথা অমৃত সমান । - কাশীরাম দাস কহে শুনে পুণ্যবান ॥ যুবনাশ্ব রাজার অশ্বহরণ । মেঘবর্ণ মহাবলী, হয়ে মহা কুতুহলী, প্রণমিল ভীমের চরণে । ভীম বড় কুতুহলে, তাছারে করিল কোলে, আশীৰ্ব্ববাদে হরষিত মনে ॥ প্ৰণমিয়া কৰ্ণ স্বতে, মঘবর্ণ আনন্দেতে, অস্তরাক্ষে করিল গমন । প্রকাশি রাক্ষস-মায়, দূর কৈল রৰিছায়া, অন্ধকারে না চলে নয়ন ॥ আকাশে থেচর সব, করে মহাকলরব, ৰরিষে মুষলধারে জল । > * প্রচণ্ড মারুত বয়, ঘোর শীলাবৃষ্টি হয়, পূর্ণিত হইল ধরাতল ॥ বাত হৈল অতি গুরু, ভাঙ্গিল যতেক তরু, পত্র পুষ্প পড়িল ভূতলে । -