পাতা:কৃষিতত্ত্ব - নীলকমল লাহিড়ী.pdf/৪১

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে চলুন অনুসন্ধানে চলুন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।

কৃষিতত্ত্ব । NOY) ফাস্তুন ও চৈত্র মাস বীজ বপনের প্রকৃত সময়। অনাবৃষ্টি আদি প্ৰতিবন্ধক স্থলে বৈশাখ মাস এবং জ্যৈষ্ঠের প্রথমাৰ্দ্ধেও বপন করা যাইতে পারে। এক বিঘা। ভূমিতে দশ সের বীজ বপন করিতে হয়। প্রথমতঃ মাঘ মাসে ক্ষেত্রে যে হইলে (কর্ষণের উপযুক্ত হইলে) দুই অথবা তিন চাষ দিয়া রাখিবে। ফাল্গুন মাসে পুনর্বার দুই কি তিনবার চাষ দিবে। মই দিয়া ঘাস মুখা আদি বাছিয়া একত্র করিয়া পোড়াইয়া ছাই সমুদয় ক্ষেত্রে দিবে। ঢেলা ও চাপ চাপ মৃত্তিকা সকল কুরশী দ্বারা ভাঙ্গিয়া ক্ষেত্ৰ সমতল করিবে। ঢেলা ও অধিক ঘাস থাকিলে খুব দাবিয়া মই দিবে। মৃত্তিকাতে অধিক রস থাকিলে দাবিয়া মই দেওয়া উচিত নয়। চাষের পর বৃষ্টি হইলে এই প্ৰণালীতে বিশেষ উপকার হয়। তৎপরে ক্ষেত্রে বাত হইয়া অল্প অল্প ঘাস উদগত হইলে একবার কর্ষণ করিয়া ঢেলাদি ভাঙ্গিয়া মই দিয়া সমতল করিয়া বীজ বপন করিবে । বীজ বপন করিবার অব্যবহিত পরেই পুনর্বার একবার কর্ষণ করিয়া মই দিয়া রাখিবে। অন্ধুর উদগত হইবার পূর্বে বৃষ্টি হইলে ক্ষেত্রে চটা বান্ধিয়া অস্কুরোদগমের বাধা জন্মে। তদবস্থা ঘটিলে “ বৃষ্টি হইবার পর ক্ষেত্ৰ শুকাইলে ” একবার মই लेिशों ने डांछिबi cल9वीं कर्द्धदा । তদ্রুপ ঘটনা না হইলেও বীজ বপনের তিন চারি দিন পরে অন্ধুর উদগত হইবার পূর্বে একবার মই দিতে হয়, নতুবা সকল বীজ সমভাবে অম্বুরিত श्श्न •ा । তদনন্তর অন্ধুর উদগত হইয়া চারা সকল চারি ইঞ্চির অধিক ছয় ইঞ্চির নূ্যন উচ্চ হইলে একবার নিড়াইতে হয়। ধান্যের চারা অতিশয় ঘন থাকিলে ফল অল্প হয় । এজন্য আট আট িৈঞ্চ অন্তর এক দুইটী করিয়া ধান্যের চারা রাখিয়া অপর ধান্যের চারা এবং ঘাস জঙ্গল আদি নিড়াইয়া ফেলিবে । ধান্যের চারা ছয় ইঞ্চি উচ্চ হইবার তিন চারি দিবস পরে একবার মই দিতে হয়। “ ইহাকে জাউনি বলে। ” যদি সে সময়ে বৃষ্টি হয়, তাহা হইলে ক্ষেত্র না। শুকাইলে জাউনি দিবে না । DDBDD DBDDD SLYD DBDD BDBBDBDDSSBBDBLD DBB DB DDD