পাতা:কোরআন শরীফ (প্রথম খণ্ড) - মোহাম্মদ আকরম খাঁ.pdf/৩৬২

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


<>3o কোরআল শরীফ [ দ্বিতীয় পার! সন্তান সন্ততির মুখ দেখার সৌভাগ্য হইতে তাহারা বঞ্চিত হইয়া থাকে। আয়তের এই ংশে ঐ শ্রেণীর ক্রিয়া ও প্রক্রিয়া মাত্রকে বর্জন করিতে এবং স্বাভাবিক ক্ষেত্রকে ব্যবহার করিতে আদেশ দেওয়া হইয়াছে। যাহারা এই আদেশ অমান্ত করিবে অথবা পালন করিবে, আয়তের শেষভাগে তাহাদিকে যথাক্রমে আল্লার দণ্ডের ভয় প্রদর্শন এবং র্তাহার পুরস্কারের স্বসংবাদ প্রদান করা হইয়াছে। এক শ্রেণীর খৃষ্টান ও আর্য্যসমাজী লেখক এই জায়তের ব্যাখ্যা লইয়া যথেষ্ট ধৃষ্টতা প্রকাশ করিয়া থাকেন, ন্যায় ও যুক্তির সংশ্রব হইতে তাহারা যে কত দূরে অবস্থিত, বিজ্ঞ পাঠককে তাহ আর বলিয়া দিতে হইবে না। ইগর যথাযথ উত্তর দিবার মত তাহাদিগের পুথিপুস্তকের বহু উপকরণ আমাদিগের নিকট সংগৃহীত আছে। কিন্তু তাহার উল্লেখ করিলেও তফছিরের পবিত্রতা নষ্ট হইয়া যায়। এজন্য সেই জঘন্য হঠোক্তিগুলির অালোচনা করিতে পারিলাম না । ২ ১৯ অtল্লাহকে অন্তরীয়রূপে গ্ৰহণ ঃ =টলা”-তালাক নামে এক প্রকার অত্যাচার আরবদেশে প্রচলিত ছিল । ইহাতে স্বামী আল্লার নামে দিব্য করিয়া বলিত—আমি স্ত্রীর নিকটে যাইব না। তাহার পর তাহাকে গ্রহণও করিত না, বর্জনও করিত না । ২২৬ আয়তে এই ঈলার বিবরণ বর্ণিত হইয়াছে। ২২৪ ও ২২৫ আয়তে ইহার ভূমিকা স্বরূপ দিব্য করা সম্বন্ধে কএকটা মৌলিক নীতির বর্ণনা করা হইতেছে । মাতুষ পুণ্যকৰ্ম্ম করিবে, সংযমশীল হইবে, সমাজের ও দেশের মঙ্গলকর কার্য্য সম্পন্ন করিতে থাকিবে, ইহাই আল্লার উদ্দেশ্য । এই শ্রেণীর কোন সৎ ও মহৎ কাজ করিবে না বলিয়া একদল লোক আল্লার নামে দিব্য করে এবং তাঁহার পর বলিতে থাকে—কি করিব, আল্লার নামে কছম খাইয়াছি, এখন তাঁহা করিতে গেলে আল্লার নামের মর্য্যাদাহানি করা হইবে । আরবে তখন এই শ্রেণীর অন্যায় দিব্য বহুলভাবে প্রচলিত ছিল, ঈলাও তাহার প্রকার বিশেষ । কোরআন বলিয়া দিতেছে—আল্লাহকে সৎকর্মের অন্তরায়রূপে গ্রহণ করিও না। অর্থাৎ আল্লার নামের মর্য্যাদণরক্ষার মিথ্যাভাণ করিয়া ঐ সকল সৎকৰ্ম্ম হইতে বিরত থাকা তোমাদের পক্ষে কখনই সঙ্গত হইবে না। কোন সৎ ও সঙ্গত কাজ করিবে না, অথবা কোন অন্যায় কাজ করিবে বলিয়া কেহ যদি আল্লার নামে দিব্য করে, তাহা হইলে সেই দিব্য ভঙ্গ করিয়া ফেলাই মুছলমান স্বরূপে তাহার কৰ্ত্তব্য হইবে। অবশ্য ঐ প্রকার অন্যায় দিব্য করার জন্য তাহাকে কাফফার দিতে হইবে—এই মৰ্ম্মে হজরত রছলে করিমের বহু স্পষ্ট আদেশ হাদিছগ্রন্থসমূহে সন্নিবেশিত আছে। (মন্‌ছর ২—২৬৮, ৬৯ পৃষ্ঠা )। ২২• অনর্থক দিব্য – , এক শ্রেণীর লোক অভ্যাসবশতঃ কথায় কথায় “আল্লাহ” “বিল্লাহ” প্রভৃতি শব্দ ব্যবহার