পাতা:কোরআন শরীফ (প্রথম খণ্ড) - মোহাম্মদ আকরম খাঁ.pdf/৮৪

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


SAAAAAA AAAA AAAA AAAA SAS S S AAAAA AAASSAAAASSSS S S ૭છ কোরতমাল শরীফ [ প্রথম পারা জ্যোতি, একটা ফুল্ল কুসুম, একটা তরতর প্রবাহিত নদী, একটা সুপ্রতিষ্ঠিত প্রাসাদ, একটা পরিপক্ক মধুর ফল বলিয়। বর্ণনা করিয়াছেন। কোঅনেই বলা হইয়াছে – فلا تعلـم نفس ما اخفى لهم من قرة عيــن " جزاء بما كانوا يعملــون . سوره لیسجد ه - ۳۳* ۷ | অর্থাৎ—“তাহাদিগের অতুষ্ঠিত কৰ্ম্মের পুরস্কাররূপে তাহাদিগের জন্য যে কি নয়নাভিরাম (পরম ধন ) লুকাইমা রাখা হইয়াছে—কোন ব্যক্তিই তাহ অবগত নহে ।" (৩২—১৭ ) । এই আম্বতের উল্লেখ করিয়া হজরত এক হাদিছ কুছতে বলিতেছেন – قال الله تعالى ـ عدات لعدادى الصالحين ما لا عجرى رأت ولا إذن سمع ست زلا خطر علیای قلب بشر - متفقی عالیه অর্থাৎ—“আল্লাহ বলিতেছেন—আমার সংকৰ্ম্মশীল বান্দাদিগের জন্য যে ন্তামত আমি প্রস্থত করিয়া রাখিয়াছি—কোনও চক্ষু তাহা দশন করে নাই, কোন কর্ণ তাহা শ্রবণ করে নাই, আর কোন মানুষের মনে তাহার কল্পনাও স্থান লাভ করিতে পারে নাই।” ( বোখারী, মোছলেম ) । এই যে অশ্রুত, অজ্ঞাত গুপ্ত ব্যাপার, এই যে দর্শনের অতীত, কল্পনার অতীত নয়নাভিরাম পরম ধন—ইহাই হইতেছে এছলামের জান্নত বা স্বৰ্গ । কৰ্ম্ম মাত্রের এক একটা ফল থাকা অবশ্যম্ভাবী। কিন্তু মানুষ এরূপ বহু সৎ বা অসৎ কৰ্ম্ম সম্পাদন করে—দুনাতে সৰ্ব্বত্র বাহার ফলাফল তাহাকে ভোগ করিতে হয় না। সুতরাং এই ফলভোগের জন্য এ জীবনের পর মানুষের আর একটা জীবন থাকাও নিশ্চিত । এই পরজীবন ও আখেরাত, একই কথা। আখেরাতের এই পুরস্কার প্রাপ্তির নাম 'জান্নত এবং দণ্ড ভোগের নাম 'জাহান্নম । জান্নত ও জাহান্নম'-ভোগ দৈহিক কি আধ্যাস্থিকরূপে “-কি উভম্বরূপে—হইবুে, ইহা লইয়। অনেক কথা কাটাকাটি করা হইয়াছে। আমরা বলি --আধ্যাত্মিকরূপে স্বর্গ ও নরক-ভোগ অসম্ভব নহে, কিন্তু সঙ্গে সঙ্গে দৈহিক স্বৰ্গ বা নরক ভোগও কোন প্রকার অসঙ্গতও নহে। মৃত্যুর পর আত্মার পক্ষে যদি অবিনষ্ট ও অবিকৃত ভাবে অবস্থান করা এবং এ জগতের কৰ্ম্মণকৰ্ম্মের ফলাফল ভোগ করা অসম্ভব ও অসঙ্গত বলিয়া বিবেচিত না হয়, তবে এই ভৌতিক দেহের পুনর্গঠন বা তাহার মুখ দুঃখ ভোগ অসম্ভব বা অসঙ্গত হইবে কেন ? আমাদের দুম্বার এই দেহই অবিকল কিয়ামতের দিন উথাপিত হইবে—এমন কথা কোম্মান বলে নাই। তাহাতে বলা হইতেছে--“আমরাই তোমাদিগের মধ্যে মৃত্যুকে নিয়ন্ত্রিত করিয়াছি, এবং তোমাদিগের আকার পরিবর্তন করিয়া দিতে ও তোমাদিগের অজ্ঞাত (এক মুক্তন) আকারে তোমাদিগকে উত্থাপিত করিতে আমরা অসমৰ নহি। আর নিজে