পাতা:কোরাণ শরিফ - প্রথম ভাগ.pdf/২৭২

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


২৬ই , কোরাণ শরিফ । দিগকে ( হে মোসলমানগণ ) কুবাক্য বলিও না, যেহেতু তাহার | অজ্ঞানত বশতঃ ঈশ্বরকে অধিক কুবাক্য বলিবে ; এই প্রকার অামি প্রত্যেক মণ্ডলীর জন্য তাহীদের ক্রিয়া সজ্জিত করিয়াছি, অবশেষে তাহীদের প্রতিপালকের নিকটে তাহদের প্রতিগমন, তৎপর তাহারা যাহা করিতেছে তিনি তাহাদিগকে ব্যক্ত করি-' বেন । ১ •৯ । তাহারা ঈশ্বর সহকারে স্বীয় কঠিন শপথে শপথ করে যে, কোন নিদর্শন তাহাদের নিকটে উপস্থিত হইলে অবশ্য তাহার তৎপ্রতি বিশ্বাস স্থাপন করিবে, বল ( হে মোহ ম্মদ, ) নিদর্শন সকল পরমেশ্বরের নিকট ভিন্ন নহে, কিসে জ্ঞাপন করিতেছে (হে মোসলমানগণ,) যখন তাহ উপস্থিত হইবে তাহার বিশ্বাস করিবে না ? ১১০ । যেমন প্রথম বাবে তাহার। ইহার ( কোরণের ) প্রতি বিশ্বাস স্থাপন করে নাই তদ্রপ আমি তাছাদের অন্তর ও তাহীদের চক্ষুকে ফিরাইব এবং আপন অবাধ্যতাচরণে ঘূর্ণায়মান হইতে ছাড়িয়। দিব * । ১১১ ৷ (র, ১৩) যদি আমি তাহাদিগের নিকটে দেবতাদিগকে অবতারণ করিতাম ও তাঁহাদের সঙ্গে মৃত ব্যক্তিরা কথা বলিত এবং আমি তাহাদের নিকটে সম্মুখভাগে সমুদায় বস্তু একত্রিত করিতাম ঈশ্বর ইচ্ছা না করিলে কখন তাহারা বিশ্বাস স্থাপন করিত না, কিন্তু তাহীদের অধিকাংশই মূখত প্রকাশ করিতেছে। ১১২।

  • অৰ্থাৎ ঈশ্বর র্যাছদিগকে আলোক দেন তাহার। প্রথমেই সত্য শ্রবণ করিয়৷ বিৰেচন সহকারে গ্রাহ্য করিয়া থাকেন। যে ব্যক্তি প্রথমেই বিরোধী হয়, তাহার নিকটে কোন নিদর্শন উপস্থিত হইলেও সে কোনরূপ ছলন।

করি। তাছা অস্বীকার করিয়া থাকে। ফেরাউণ মুসার প্রদর্শিত নিদর্শন সকলের প্রতি কিছুতেই ৰিশ্বাস স্থাপন করে নাই। (ত, শা)