পাতা:কৌত্তক বিলাস.djvu/৫২

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


কৌত্তক বিলাস ॥ 8t সকল জ্যোক্তিৰে তোমরা সবে গণ। আমার এই প্রশ্ব করিলে পূরণ নিষ্কারতে দিব রাজ্য আর বহুধন । যদি নাহি পার কেহ ইহা গুণিবারে ৷ খায়াইব ধান্য সবে রাখি কারাগারে । শুনিয়া পণ্ডিত গণের উড়িল পরাণ হরিষে দিষাদ হৈল ধড়ে নড়ে প্রাণ। কার সাধ্য ভমিকম্প করিবে গণন । জ্যোতিষে সন্ধান নাই পাবে ' কোনজন। নিশ্চয় জানিল সবে নিকট মরণ ! প্রাণের কারণ তারা করিছে রোদন । নবাব কহিছে দ্বিজ ভাবক উপায় । পার কিনা পার তাহ কহতো আমায় ৷ দ্বিজ গণ বলে স্বগ বর্গ মোরা গুণি ৷ পাতাল বগের কথা কি ছুই নাজানি। শুনি ক্রোধে জাহাগির কপিয়ে শরীর। ইঞ্জিতেতে জমাদার হুজুরে হাজির ॥ ধরে লয়ে দ্বিজ গণে রাখে কারাগারে। হাতে পায় বেড়ি দড়ি নে বান্ধে চোর কয়েদ রাখিয়া ধান করান ভোজন । দুই দিনে দ্বিজগণে অদ্ধেক নিধন ৷ এখানে সম্বাদ পায় সুবোধ রাজন। ভাবে ব্রহ্মবধ হইল আমার কারণ ॥ o গোপালকে পরিচয় দেওন । পয়ার । আমি যদি নাপাঠাই এতেক পণ্ডিত। তবে তোন হইত হেন বিপরীত ৷ নিশ্চয় আমার লাগি ব্রহ্ম হত্যা হয় । আমার জীবনে আর নাহি ফলোদয় । এত বলি অম্বেশনে রহে নৃপবর। সদাই বিরস মন বদনে নিঃশ্বর ৷ কি করিব কি হইবে কে রাখে এদায় । হেল ।