পাতা:গল্পসল্প - রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.pdf/৬৩

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


আরো-সত্য তা না করে দিলে সোনার পেয়ালায় চ খেতে । চন্দ্রমল্লিকার সঙ্গে মেশানো সেই চা, গন্ধে আকুল ক’রে দেয়। তা হলে কি তোমাকে বিয়ে করল নাকি । দেখো, ওটা বড়ো গোপন কথা । আজ পর্যন্ত কেউ জানে না । কুসমি হাততালি দিয়ে বলে উঠল, বিয়ে নিশ্চয়ই হয়েছিল, খুব ঘটা করে হয়েছিল । দেখলুম বিয়েট না হলে ও বড়ো দুঃখিত হবে। শেষকালে হল বিয়ে – হাংচাও শহরের আদ্ধেক রাজত্ব আর শ্রীমতী আংচনী দেবীকে লাভ করলুম। করে— করে কী হল। আবার বুঝি সেই উটে চড়ে বসলে ? নইলে এখানে ফিরে এসে দাদামশায় হলেম কী করে। হ্যা, চড়েছিলুম— সে উট কোথাও যায় না। মাথার উপর দিয়ে ফুসুং পাখি গান গেয়ে চলে গেল । ফুলুং পাখি ? সে কোথায় থাকে। কোথাও থাকে না ; কিন্তু তার লেজ নীল, তার ডানা বাসন্তী, তার ঘাড়ের কাছে বাদামী, ওরা দলে দলে উড়ে গিয়ে বসল হাচাং গাছে । হাচাং গাছের তো আমি নাম শুনি নি । আমিও শুনি নি, তোমাকে বলতে বলতে এইমাত্র মনে পড়ল । আমার ঐ দশা, আমি আগে থাকতে তৈরি হই নে। তখনি তখনি দেখি, তখনি তখনি বলি। আজ আমার ফুমুং পাখি উড়ে চলে গেছে সমুদ্রের আর-এক পারে। অনেকদিন তার কোনো খবর নেই। কিন্তু, তোমার বিয়ের কী হল । সেই রাজকন্যা ? দেখো, চুপ করে যাও । আমি কোনো জবাব দেব না। আর তা ছাড়া, তুমি দুঃখ কোরো না, তখনো তুমি জন্মাও নি— সে কথা মনে রেখে । لا ولا