পাতা:গল্পাঞ্জলি.djvu/১৮৫

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


আদরিণী প্রথম পরিচ্ছেদ পাড়ার নগেন ডাক্তার ও জুনিয়ার উকীল কুঞ্জবিহারী বাবু বিকালে পাণ চিবাইতে চিবাইতে, হাতের ছড়ি জুলাইতে ফুলাইতে জয়রাম মোক্তারের নিকট আসিয়া বলিলেন—"মুখুয্যে মশায়, পীরগঞ্জের বাবুদের ৰাড়ী থেকে আমরা নিমন্ত্রণ পেয়েছি, এই সোমবার দিন মেঝ বাবুর মেয়ের বিয়ে। গুনছি নাকি ভারি ধুমধাম হবে। বেনারস থেকে বাই আসছে, কলকাতা থেকে খেমটা আসছে। আপনি নিমন্ত্রণ পেয়েছেন কি ?” মোক্তার মহাশয় তাহার বৈঠকখানার বারান্দায় বেঞ্চিত্তে বসিয়া ক্লক হাতে করিয়া তামাক খাইতেছিলেন । আগন্তুকগণের এই প্রশ্ন শুনিৰ, ইকাটি নামাইয়া ধরিয়া, একটু উত্তেজিত স্বরে বলিলেন—“কি রকম ? আমি নিমন্ত্রণ পাৰ না কি রকম ? জান, আমি আজ বিশ বছর ধরে তাদের এষ্টেটের বাধা মোক্তার ?—আমাকে বাদ দিয়ে তারা তোমাদের নিমন্ত্রণ করবে, এইটে কি সম্ভব মনে কর ?” জয়রাম মুখোপাধ্যায়কে ইহারা বেশ চিনিতেন—সকলেই চিনে । অতি অল্প কারণে র্তাহার তীব্র-অভিমান উপস্থিত হয়—অথচ হৃদয়খানি স্নেহে, বন্ধুবৎসল্যে কুমুমের মত কোমল, ইহা যে র্তাহার সঙ্গে কিছুদিনও ব্যবহার করিয়াছে, সেই জানিয়াছে। উকীলবাবু তাড়াতাড়ি বলিলেন— “না—না—সে কথা নয়—সে কথা নয়। আপনি রাগ করলেন মুখুয্যে মশায় ? আমরা কি সে ভাবে বলেছি ? এ জেলার মধ্যে এমন কে বিষয়ী লোক আছে, ষে আপনার কাছে উপকৃত নয়—আপনার খাতির না করে ? আমাদের জিজ্ঞাসা করবার তাৎপৰ্য্য এই ছিল যে, আপনি "সেদিন পীরগঞ্জে ৰাবেন কি ?”