পাতা:গল্পাঞ্জলি.djvu/৫১

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


বাল্যবন্ধু 86t একজন মাষ্টার খুজছিলাম। দশ টাকা মাইনে । এই সন্ধে সাড়ে ভুটা থেকে রাত্রি সাড়ে নট পৰ্য্যস্ত আর কি। আপনি যদি স্বীকার করেন তা হলে—” নলিনী বলিল—“অবিশুি স্বীকার করব। আপনি আমার যে রকম উপকার করেছেন—আপনার ভাগনেকে পড়িয়ে আমার টাকা নেওয়াই উচিত নয়। কিন্তু উপায় কি ? আর, আমাকে নিরুপায় দেখেই, ভাগ নেকে পড়াবার নাম করে আপনি আমার সাহায্য করতে অগ্রসর হয়েছেন, তাও আমি বুঝতে পারছি। আমি আর আপনাকে কি বলে কতজ্ঞতা জানাব ? ঈশ্বর আপনার ভাল করুন।” তামাক আসিল । ভুবন বাবু নলটি নলিনীর হাতে দিয়া বলিলেন— “না না—আপনি সে রকম মনে করবেন না। উপকার টুপকার কিছুই নয়। একজন লোক আমার দরকার, যে কায করবে, তাকেই টাকা দিতে হবে। অন্তকে না দিয়ে না হয় আপনাকেই দিলাম।” উভয়ে তামাক থাইতে থাইতে কথাবাৰ্ত্ত কহিতে লাগিলেন। নলিনী অবগত হইল, এ বাড়ীখানি ভুবনেশ্বর বাবুর বিধবা ভগ্নীর । তিনিই ইহাদের অভিভাবক --মাঝে মাঝে আসিয়া ইহাদিগকে দেখিয়া শুনিয়া যান। একজন পুরাতন বিশ্বস্ত কৰ্ম্মচারী এখানে থাকিয়া ইহাদের রক্ষণাবেক্ষণ করে । ভুবন বাবু আর হই তিন দিন মাত্র কলিকাতায় আছেন—তাহার পর বন্দীপুরে ফিরিয়া যাইবেন । আবার আসিতে বোধ হয় সেই চৈত্র মাস। আগামী পরশ্ব ইংরাজি মাসের ১লা তারিখ । স্থির হইল, পরশ্ব হইতেই নলিনী উভয় কৰ্ম্ম আরম্ভ করিবে । অঙ্ক বিকালে ভূবন বাবু নলিনীকে লইয়া হেডক্লার্ক বাবুর সহিত সাক্ষাৎ করাইবেন।