পাতা:গল্প-গ্রন্থাবলী (প্রভাতকুমার মুখোপাধ্যায়) তৃতীয় খণ্ড.djvu/১৩৫

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


সশীলা না পিপঞন্ন ? 母鸟鸣 १छजाश्रुनग्न क्वक मदर्शप्रेरक नब्रादेरठन, छदष्ठा ८धाजा नाब्रटण ठाशe ठिक अकदे ब्रक्रमब्र হইত। আমাদের বাড়ীতে দুইটি প্রায় একসঙ্গেই আসিত। কখনও একটি একলা आनरल बाफ़ौब्र नकटण६ छिछाना कब्रिङ-“मद्भलौणा ना निन्दणा ?” ८व जनिष्ठ, दन नट्छन्न नाअीछेँ बलिज्र । " আমাদের বাড়ীর পশ্চাতে একটি ফল-ফলের বাগান ছিল, আমি কখনও সশীলাকে, কখনও পিপলোকে, কখনও উভয়কে সেই বাগানে লইয়া যাইতাম। সকল ফলের মধ্যে পেয়ারাটাই ছিল তাহদের অত্যন্ত লোভের বস্তু। পেয়ারা পাড়িয়া দিতাম, উভয়ে খাইত। কখনও স্বহস্তে পেয়ারা পাড়িবার অাদার লইত—পাকা পেয়ারা খুজিয়া তাহার নিন্নভাগে দাঁড়াইয়া একে একে উভয়কে আমি কাঁধে তুলিয়া বসাইতাম, তাহারা আনন্দ কলরবে পেয়ারা পাড়িত। তখন আমার পৈতা হইয়া গিরছে—বয়স বারো বৎসর। সশীলা পিপলা পাঁচ। একদিন আমার সাক্ষাতেই কাকীমা মাকে বলিলেন, “সুশীলা কি পিপলো, একটিকে ভাই তোমায় নিতে হবে।” মা হাসিয়া বলিলেন, “বেশ ত, ছিলে খড়ী, হবে—থবাশুড়ী।" বারো বৎসর বয়সের সকল ছেলে এই কথোপকথনের অর্থ বুঝিতে পারিত কি না, জানি না; কিন্তু আমি জলের মতই বঝিয়াছিলাম; বাল্যকালে আমি বোধ হয় একটা অকালপক্কই ছিলাম। পরদিন স্কুলে গিয়া, ক্লাসের বজেম ফ্ৰেণ্ড হরিগোপালকে জলখাবার ঘরের নিকট একাকী পাইয়া চাপি চলপি বলিলাম, “ওরে, আমার যে বিয়ে।” হরিগোপাল জিজ্ঞাসা করিল, “কবে রে ?” বলিলাম, “তা জানিনে, ভাই। বোধ হয়, বড় হলে পাস-টাস করলে।” হরিগোপাল তাচ্ছিল্যভাবে বলিল, “ধুৎ, সে ত ঢের দেরী। কোথায় সম্প্রবন্ধ শুনি ? কার সঙ্গে ?” “চন্দুবাবর মেয়ের সঙ্গে।” “সেই সশীলা পিপলা? “शाँ।” “কোনটীর সঙ্গে ?” “তা এখনও জানিনে, ভাই। দটোর মধ্যে একটার সঙ্গে ।” “তা, তোর কোনটাকে পছন্দ শানি।” “তা কি জানি ভাই, দুটোই ত এক রকম।” হরিগোপাল আমার চেয়ে দই তিন বছরের বড়। সে তখন সিগারেট খাইতে ও নভেল পড়িতে শিখিয়াছে। এসব বিষয়ে আমার চেয়ে সে ঢের বেশী বিজ্ঞ। হরিগোপাল গভীরভাবে বলিল, “তোর মা-বাপ যদি তোকে জিজ্ঞাসা করেন, তুই সশীলাকে यिरञ्च कब्राद, ना *ि*एलारक विाग्र कब्रवि, छूट्टे कि फेखञ्च निवि, श्रदान ?” “তাই ত, ভাই, কি উত্তর দেবো বলে দাও।” o হরিগোপাল গভীরভাবে কিরৎক্ষণ চিন্তা করিয়া বলিল, “এর মধ্যে আসল কথা কি হচ্ছে, জানিস ?” “कि ?” "আসল কথা হচ্ছে লভ-ভালবাসা। অনেক নভেলে আমি পড়েছি, ভালবাসা ভিন্ন বিয়ে হলে সে বিয়েতে সুখ হয় না। এখন তোকে খোঁজ নিতে হবে, কে তোকে বেশী ভালবাসে—সশীলা না পিপলা। যে তোকে বেশী ভালবাসে, তাকেই বিয়ে করবি—এ ত সাজা কথা ।” “याक्का” दलिन्ना श्रात्रि क्राट्न् कृलिम्ना दाङझञ । পরদিন রবিবার ছিল সশীলা-পিপলো আসিলে আমি তাহাদিগকে জিঙ্কালা