পাতা:গীতরত্ন গ্রন্থঃ (১৮৭০)- রামনিধি গুপ্ত.djvu/২৫

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটিকে বৈধকরণ করা হয়েছে। পাতাটিতে কোনো প্রকার ভুল পেলে তা ঠিক করুন বা জানান।

[  ]

ভৈরব রাগ ৷

তাল জলদ্‌ তেতালা ।

বিভাবরী পোহাইল, অনেকে হরিষ হল।
আমারে হতেছে বোধ দিনমণি কাল ।। ১ ।।
 
 দেখনা সই একি বিষম হইল পিরীতি মোরে ।
কহিতে সে দুঃখ, বিদরয়ে বুক, নয়ন নীরেতে
ভাসে অনল অন্তরে ।।
রাখিতে কুলের ভয়, তেজিতে প্রাণ সংশয় ।
গন্ধমুখি মুখে, হরি হরি ডাকে, তেজিলে নয়ন
যায় থাইলে সে মরে ।। ১ ।।

 বিনয়ের বশ যদি হইত যামিনী ।
প্রভাত প্রমাদ তবে সহে কি কামিনী ।
পরশে প্রাতঃ সমীর, চঞ্চল অন্তর মোর,
কেমনে রাখিব আর, শুন গুণমণি ।। ১ ।।


ভৈরবী ৷

তাল জলদ্‌ তেতালা ।

 এমন পিরীতি প্রাণ জানিলে কে করে । হে ।
সুখ আশে ভাসে সদা ছুঃখের সাগরে ৷
সতত চাতুরী করি জ্বলাবে আমারে।
তবে কি যতনে প্রাণ সঁপি হে তোমারে ।। ১ ।।
বিরহ জ্বালায় মন করি ত্যজিবারে ।
ছাড়িলে না ছাড়া যায়, কি হলো আমারে ।। ২ ।।