পাতা:গীতা-গ্রন্থাবলী (উপেন্দ্রনাথ মুখোপাধ্যায়).djvu/৪০৩

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


ΟΣ Φ শিব গীতা । নাডীমাগৈরিন্দ্রিয়াণামাকৃষ্ঠ্য্যাদায় বাসনাঃ। সৰ্ব্বং গ্রসিত্ব কাৰ্য্যঞ্চ বিজ্ঞানাত্মা ৰিলীয়তে ॥ ২২ ঈশ্বরার্থ্যেহব্যাক্লতে৯থ যথা সুখময়ো ভবেৎ । কুৎসপ্রপঞ্চবিসয়স্তথা ভবতি চাত্মনঃ ॥ ৫৩ ॥ ঘোষিতঃ কাম্যমানায়াঃ সন্তোগাস্তে যথা সুধম্। স আনন্দময়োইবাহো নাস্তরঃ কেবলস্তথা ॥ ৫৪ ৷ প্রাজ্ঞাত্মানং সমাসান্ত বিজ্ঞানাত্মা তথৈব সঃ। বিজ্ঞানাত্মা কাবণাত্মা তথা তিষ্ঠন্নথাপি স: ॥ ৫৫ ৷ অবিদ্যাসূক্ষ্মবৃত্তাল্পভবত্যেব সুখং যথা । তথাস্কং মুখমস্বপ্তোং নৈব কিঞ্চিদবেদিষমৃ ॥ ৫৬ ॥ এই প্রকারে আত্মাব সহিত একীভাব প্রাপ হইয়াও পুনরায় বুথিত হয কেন, তদ্বিষয় বলিতেছেন। স্বমুপ্তি অবস্থায় বিজ্ঞানাত্মা অর্থাৎ জীব নাড়ীমাৰ্গদ্বারা সমস্ত অবিদ্যাকার্য জাগ্রৎস্বপ্নাদি অবস্থার বাসনাবাঁশি-সংশ্লি৮ হইয়াই ঈশ্বব্যখ্য মায়োপহিত চৈ হন্তে বিলীন হয় । অনস্তর মুখময় হইয অবস্থিতি কবে । যেমন কাম্যমান স্ত্রীব সন্তোগসময়ে অন্যান্য বৈষয়িক সুখ অপেক্ষ অধিকতব মুখামুভূতি চয়, তেমনি স্বযুপ্তি অবস্থায় অধিক স্বপেন উপলব্ধি কইয়া থাকে, অতএব তখন জীব আনন্দময় হয় । তাহার বাহ বিষয়সম্বন্ধ বশতঃ কোন প্রকার বুfত্ত খাকে না এবং মোক্ষাবস্থার ন্যায় মূল কারণেরও ( অভিমানেব ) নিবৃত্তি হয় না । সুতরাং আত্মা কেবলীভাব প্রাপ্ত হয়েন না । ৫২-৫৪ ॥ জীব জাগ্ৰদাদি অবস্থায় যেমন অভেদভাব প্রাপ্ত হয় না, তেমনি সুষুপ্তি অবস্থায়ও প্রাজ্ঞাত্মা অর্থাৎ ঈশ্বরকে প্রাপ্ত হইলেও তাহার সহিত ভেদভাব অবগত হয় না, কিন্তু জীব তখন দুঃখবিরহিত হয়, এই নিমিত্ত তাঙ্গকে কাবণাত্মা অর্থাৎ ঈশ্বব বলিয়া অভিহিত করা হইয়া থাকে ॥ ৫৫ ৷ স্বযুপ্তি অবস্থায় যদি অন্ত:করণাদি সমস্তেরই বিলয় হইয়া যায়, তবে “মুখমহমম্বাঙ্গং” অর্থাৎ আমি সুখে নিদ্রিত ছিলাম, জুপ্তোশিত ব্যক্তির এই প্রকার জ্ঞান কেমন করিয়া হয়, এই আপত্তি মনে করিয়া বলিতেছেন । —ঘেমন সুষুপ্তি অবস্থায় অবিস্তাব স্বল্পবৃত্তি দ্বারা মুখামুভব হইয়া থাকে, তেমনি অৰিষ্ঠ বৃত্তিস্বারাই “স্থমহমম্বাঙ্গং ন কিঞ্চিদৰেদিষং” ইত্যাদি প্রত্যভিজ্ঞ উৎপন্ন হয় ॥ ৫৬ ৷