পাতা:চন্দ্রশেখর- বঙ্কিমচন্দ্র চট্টোপাধ্যায়.djvu/১৫৪

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


:* চন্দ্রশেখর শৈবলিনী চক্ষু মুছিল, রোদন সম্বরণ করিল—স্থির হক্টর ‘বলিতে णाशिल, “cवाथ इद्र जामि आब अछि अन्न निन बैंकिंद ” শৈবলিনী শিহরিল—স্বপ্নদৃষ্ট ব্যাপার মনে পড়িল—ক্ষণেক কপালে হাত দিয়া, নীরব থাকিয়া আবার বলিতে লাগিল— *অল্প দিন ব:চিব—মরিবার আগে তোমাকে একবার দেখিতে সাধ হইয়াছিল । এ কথার কে বিশ্বাস করিবে ? কেন বিশ্বাস করিবে ? যে ভ্ৰষ্ট হইয়া স্বামী ত্যাগ করিয়া আসিয়াছে, তাহার আবার স্বামী দেগিতে সাধ কি ?” শৈবলিনী কাতরতার নিকট হাসি হাসিল । ' চন্দ্র । তোমূীয় কথায় অবিশ্বাস নাই –আমি জানি যে, তোমাকে বলপূর্বক ধরিয়া न। ८नं भिथा কথা। আমি ইচ্ছাপূৰ্ব্বক ফষ্টরের সঙ্গে চলিয়া আসিয়াছি tাম। ডাকাইতির পূৰ্ব্বে ফষ্টর আমার নিকট লেক প্রেবণ করিয়াছিল । চন্দ্রশেখর অধোবদন ইষ্টলেন । ধীরে ধীরে শৈবলিনীকে পুনরপি গুয়াইলেন ; ধীরে ধীরে গারোখান করিলেন, গমনোমুখ হুইয়া, মুছমধুর স্বরে বলিলেন, :

  • শৈবলিনী, দ্বাদশ বংসর প্রায়শ্চিত্ত কর। উভয়ে दैप्टेिम्नो থাকি, তবে প্রায়শ্চি স্থান্তে আবার সাক্ষা ই হুইবে । এক্ষণে এই

পৰ্য্যন্ত " . - শৈবলিনী হাতযোড় করিল –বলিল, “আর একবার বসে ! বোধ হয়, প্রায়শ্চিত্ত আমার অদৃষ্টে নাই।” আবার সেই স্বপ্ন মনে পড়িল—“বুধে—তোমায় ক্ষণেক দেখি।” চন্দ্রশেখর বসিল ।